হিন্দু সংহতির তপন ঘোষের সাম্প্রদায়িক উস্কানি আসামে, এফআইআর,পুড়ল কুশপুতুল

টিডিএন বাংলা ডেস্ক: হিন্দু সংহতির নেতা তপন ঘোষের উস্কানিমূলক মন্তব্য নিয়ে সোমবার প্রতিবাদে কাঁপল সোনাই। এদিন বিকেলে সোনাইর প্রাণকেন্দ্র তেমাথা মোড়ে তপন ঘোষের কুশপুত্তলিকা দাহ করলেন ছাত্ৰ সংস্থা আমিসা, আমসু সহ কয়েকটি সংঘটনের কর্মকর্তা ও সমর্থকরা। খবর দৈনিক যুগশঙ্খের।

অভিযোগ, শনিবার শিলচরে এক সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে মুসলিমদের বিরুদ্ধে হাতে অস্ত্র নিতে উৎসাহিত করেছেন এই নেতা। তাঁর এমন উস্কানিমূলক মন্তব্য নিয়ে তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন উপস্থিত ছাত্রনেতারা। এ ব্যাপারে প্রশাসনিক কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান তাঁরা। প্রতিবাদ স্থলে  দাঁড়িয়ে বক্তারা বলেন, সাম্প্রদায়িক বয়ানবাজি দিয়ে বরাকের শান্তি ও সম্প্রতির পরিবেশকে প্রদূষিত করতে চাইছেন উগ্র হিন্দুত্ববাদী সংগঠনের একাংশ নেতা।

কুশপুতুল পুড়িয়ে বক্তারা বলেন, এই দেশ স্বাধীনে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রয়েছে মুসলিমদের। এই মুহূর্তে যারা বিভিন্ন পন্থায় দেশের গণতান্ত্রিক কাঠামোকে কালিমালিপ্ত করতে চাইছে তারাই স্বাধীনতার সময় ব্রিটিশের লেজুড়বৃত্তিতে নিয়োজিত ছিলেন। সব ধর্মের সিংহভাগ মানুষই সুন্দর পরিবেশে বাস করতে চায়। শান্তি ও সম্প্রতির বন্ধন বিনষ্টকারী এমন সংগঠনকে নিষিদ্ধ করার দাবি তোলা হয়।


এদিকে তপন ঘোষ নিজের ফেসবুকে জানিয়েছেন,আসামের থানায় এফআইআর হয়েছে তাঁর বিরুদ্ধে। শুধু তপন ঘোষ নয়,হিন্দু সংহতির নেতা দেবতনুর বিরুদ্ধে একাধিক থানায় অভিযোগ হয়েছে।