ঋণ মকুবের দাবিতে মহারাষ্ট্রে ৩৫ হাজার কৃষকের পদযাত্রা, আজ বিধানসভা ঘেরাও অভিযান

0

টিডিএন বাংলা ডেস্ক : রাজ্য সরকারের ওপর ক্ষুব্ধ মহারাষ্ট্রে কৃষকদের নিয়ে এক মহামিছিল করছে সিপিএমের কৃষক সংগঠন সর্ব ভারতীয় কৃষক সভা। রাজ্যের প্রত্যন্ত অঞ্চলের কৃষকদের দুর্দশাকে হাতিয়ার করে রাজ্যে বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে কৃষক বিদ্রোহ সংগঠিত করার চেষ্টা করছে এই বাম দল। দেশের প্রায় ৩৫ হাজার কৃষক তাদেরকে দেয়া সমুদয় ঋণ ও বিদ্যুৎ বিল মকুবের দাবিতে মহারাষ্ট্রের রাজধানী মুম্বাই অভিমুখে ১৮০ কিলোমিটার দীর্ঘ এক পদযাত্রা শুরু করার পর নগরের উপকণ্ঠে এসে পৌঁছেছেন। প্রতিদিন হেঁটে তারা গড়ে ৩০ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়েছেন। আজ তারা মহারাষ্ট্রের বিধানসভা ভবন ঘেরাও করবেন। এআইকেএস দাবি করেছে, সব মিলিয়ে মোট এক লাখ কৃষক এই ঘেরাওয়ে অংশ নেবেন। তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মহারাষ্ট্র সরকারের একজন সরকারি কর্মকর্তার দাবি, শেষমেষ কৃষকদের এই ঘেরাও কর্মসূচিতে অংশ নেয়াদের সংখ্যা ৬০ হাজারের বেশি হবে না।

এর আগে রাজ্য সরকার কৃষকদের ১৩ হাজার কোটি টাকার ঋন মাফ করলেও বিরোধীদের দাবী যে কৃষকরা এখনো পর্যন্ত তার লাভ পায়নি। তবে সমস্ত বিরোধী দল কৃষকদের সমস্যাকে হাতিয়ার করে ২০১৯ লোকসভা ভোটের আগে দেশজুড়ে মোদি সরকারকে কৃষক বিরোধী হিসাবে তুলে ধরার চেষ্টা করতে চলেছে তা তাদের বর্তমান রাজনৈতিক কর্মসূচী দেখেই স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। শুধু তাই নয়, সম মনভাবাপন্ন রাজনৈতিক দলগুলিকেও এই আন্দোলনে যুক্ত হওয়ার আবেদন জানানো হয়েছে দলের তরফ থেকে। এর আগে ২০১৭ সালের মার্চ-এপ্রিল মাস নাগাদ কংগ্রেসের তরফে রাজ্যে একই রকমের আন্দোলনের সংগঠিত করা হয়েছিল। কৃষকদের এই ঘেরাও ও বিক্ষোভ কর্মসূচি উপলক্ষে মহারাষ্ট্র পুলিশ ব্যাপক সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হাতে নিয়েছে। এরই মধ্যে পুলিশ কৃষকদের পদযাত্রা কোন কোন রাস্তা দিয়ে যাবে, তারও একটি পথনির্দেশ জারি করেছে।

tdn_bangla_ads