প্রাণভিক্ষার প্রথম আবেদন নাকচ করলেন রাষ্ট্রপতি কোবিন্দ

0

টিডিএন বাংলা ডেস্ক : শপথ গ্রহণের পর প্রথম প্রাণভিক্ষার আবেদনই নাকচ করে দিলেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ।অভিযুক্তের নাম জগত রাই। সাত জনকে ঘুমন্ত অবস্থায় পুড়িয়ে মারার ঘটনায় পাঁচ বছর আগে তার মৃত্যুদন্ড বহাল রেখেছিল সুপ্রিমকোর্ট। ঘটনাটি ঘটেছে বিহারে।
কাকতালীয়ভাবে গত জুলাইয়ে রাষ্ট্রপতি হিসেবে শপথগ্রহণের আগে বিহারের গভর্নরের দায়িত্বে ছিলেন কোবিন্দ।

প্রতিবেশী জগত রাই, ওয়াজির রাই, অজয় রাইয়ের বিরুদ্ধে মোষ চুরির অভিযোগ করেছিলেন বিহারের বাসিন্দা বিজেন্দ্র মাহাতো। এরপরই অভিযোগ তুলে নেওয়ার জন্য বিজেন্দ্রকে চাপ দিতে থাকে জগত রাই। রাজি না হওয়ায় রাতে বিজেন্দ্রের বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দেয় জগত রাই। এতে বিজেন্দ্র, তার স্ত্রী ও পাঁচ সন্তানকে ঘুমন্ত অবস্থায় মারা যান। ২০০৬ সালের ১ জানুয়ারি বিহারের বৈশালি জেলার রামপুর শ্যামচাঁদ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ওই ঘটনায় স্থানীয় আদালত জগত রাইকে মৃত্যুদণ্ড দেয় স্থানীয় আদালত। হাইকোর্ট পেরিয়ে মামলা গড়ায় সুপ্রিম কোর্টে। ২০১৩ সালের সেপ্টেম্বরে এ ঘটনাকে ‘বিরলতম’ আখ্যা দিয়ে জগত রাইয়ের মৃত্যুদণ্ড বহাল রাখে সুপ্রিম কোর্ট। প্রণব মুখার্জী রাষ্ট্রপতির দায়িত্বে থাকাকালেই গত বছর প্রাণভিক্ষার আবেদন করা হয়। কিন্তু ১৪ তম রাষ্ট্রপতি কোবিন্দকে নির্বাচিত করার প্রক্রিয়া শুরু হওয়ায় তিনি কোনো সিদ্ধান্ত নিতে পারেননি।

সূত্র: জি নিউজ ও ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস