সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির অনন্য নজির, হিন্দু-মুসলিম দুই বিয়ে একই প্যান্ডেলে

0

টিডিএন বাংলা ডেস্ক : সর্ব ধর্মের একাত্মতায় গড়ে ওঠা এই ভারতে ধর্ম নিয়ে বিবাদ, সংঘাত, মারামারি, কাটাকাটি সুদূর অতীত থেকেই লেগেই আছে। কিছু রাজনৈতিক দল নিজেদের স্বার্থ হাসিলের জন্য মুসলিম সম্প্রদায়ের সঙ্গে হিন্দু সম্প্রদায়ের ঝগড়া বাধাতে কুন্ঠা বোধ করছে না। সাম্প্রতিক কালেও অবস্থার যে খুব একটা উন্নতি হয়েছে, তা একেবারে চোখ বন্ধ করে দিয়ে বলে দেয়া যাবে না।

এহেন হিংসাত্মক ঘনঘটার পরিস্থিতেও একই প্যান্ডেলে একই সময়ে হিন্দু ও মুসলিম রীতিতে দুটি বিয়ে সম্পন্ন করে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির অনন্য নজির পেশ করেছেন দুই সম্প্রদায়ের মানুষ। এ অভিনব ঘটনাটি ঘটেছে হরিয়ানার রোহতক জেলার জিন্দ এলাকায়।

রাজেন্দ্র কুমার ও সাব্বির কুমার দীর্ঘ দিনের পড়শি। দুইজনই তাদের মেয়ের বিয়ের জন্য একই হল ভাড়া করেন। রাজেন্দ্র হলটি ভাড়া করেছিলেন সন্ধ্যার জন্য। অপরদিকে সাব্বির হলটি ভাড়া করেছিলেন দুপুর বেলার জন্য।

কিন্তু তথ্যগত ভুল ও বিয়ের আয়োজনের চাপে রাজেন্দ্রর মনে হয়েছিল তিনি দুপুরের জন্য হলটি ভাড়া নিয়েছিলেন। সব আয়োজন সম্পন্ন। কিন্তু দুপুর বেলা গিয়ে দেখলেন ওখানে পড়শি সাব্বিরের মেয়ের বিয়ে হচ্ছে।

সব আয়োজন না হয় সন্ধ্যায় সময় স্থানান্তর করবেন। কিন্তু বিয়ের লগ্ন তো চলে যাচ্ছে। ওদিকে অতিথিদের তো নিমন্ত্রণ করা হয়েছে দুপুর বেলায়। অতিথিরা একে একে আসতে শুরুও করে দিয়েছে। কি করবেন ভেবে পাচ্ছিলেন না।

ঠিক তখনই এগিয়ে এলেন পড়শি সাব্বির। তিনিই রাজেন্দ্রকে দুটি বিয়েই একই সময় একই জায়গায় সম্পন্ন করার প্রস্তাব দেন। তিনি বলেন, কাকতালীয়ভাবে এমন ঘটনা ঘটে যায়।

এদিকে দুই বিয়েতে আগত সব অতিথি এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন। দুই বরও এতে অমত করেননি। ভোজের আয়োজনে খাবার তালিকায় ভিন্নতা থাকলেও উভর দিকের অতিথি মিলেমিশে পুরো বিষয়টি উপভোগ করেছেন।

রাজেন্দ্র বলেন, এটি একটি অনন্য বিষয়। মাত্র ৫০ ফুটের ব্যবধানে ‘শাদি’ ও ‘নিকাহ’ দুটোই হচ্ছে।