বেলডাঙায় ট্রাকের ধাক্কায় গুরুতর জখম পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী, জ্বলল ট্রাক্টর

0

কিবরিয়া আনসারী, টিডিএন বাংলা, মুর্শিদাবাদ: বেলডাঙায় ট্রাকের ধাক্কায় গুরুতর জখম হলেন এক পঞ্চম শ্রেণীর পড়ুয়া । জখম ছাত্রীর নাম ফিরোজা খাতুন (১১)। শুক্রবার ঘটনাটি ঘটেছে বেলডাঙা থানার কুমারপুর বিএনএম হাই স্কুলের সামনে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়ালো এলাকায়। ঘটনার জেরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন স্কুলের পড়ুয়ারা। উত্তেজিত ছাত্র-ছাত্রীরা জ্বালিয়ে দেয় ট্রাক্টর।


এলাকায় উত্তেজনা ছড়াতেই ঘটনাস্থলে বেলডাঙ্গা থানার বিশাল পুলিশবাহিনী এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ আনে। গুরুতর জখম ওই ছাত্রীকে মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজে নিয়ে যাওয়া হয়। চিকিৎসকেরা দেখে সঙ্গে সঙ্গে তাকে কোলকাতা মেডিক্যালে রেফার করে।

Advertisement
head_ads

স্থানীয়দের অভিযোগ, দীর্ঘদিন থেকে বিদ্যালয়ের সামনের রাস্তা টি বেহাল হয়ে পড়ে রয়েছে। রাস্তাটি সংস্কারের জন্য লিখিতভাবে জানানো হয় বিডিও কে। তবুও কোনো সুরাহা হয়নি। প্রশাসনের খামখেয়ালী পনার জন্যই এই দূর্ঘটনা।


স্কুলের দশম শ্রনীর ছাত্র রফিকুল হাসান বলেন, রাস্তাটা খুবই খারাপ। আর সব সময় ট্রাক্টরের যাতায়েত। আমরা কয়েকজন রাস্তাই দাড়িয়ে ছাত্র-ছাত্রীদের পারাপার করি। আজ ফিরোজা স্কুলের আসার সময় সে রাস্তাই পড়ে যায়। আর সেই সময় একটি ট্রাক্টর তার হাতের উপর দিয়ে চলে যায়।

কুমারপুর বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বাসুদেব রায় জানিয়েছেন, আমরা রাস্তাটি সংস্কারের জন্য একাধিক বার বলেছি। তবুও কেও কোনো কাজ করেনি। আমরাও যাতায়াত করতে ভয় পাই। স্কুলের গেটের কাছে আমাদের কিছু ছেলে থাকে ছাত্র-ছাত্রীদের পারাপার করার জন্য। সর্তক থাকার পরও কিভাবে যে দূর্ঘটনা ঘটে গেলো বুঝে উঠতে পারছি না।

বেলডাঙ্গা ১ ব্লকের বিডিও সুভাংশু মন্ডল  ঘটনাস্থলে গিয়ে দ্রুত সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দেন। তিনি জানিয়েছেন, ছাত্রদের দাবি মেনে রাস্তার কাজ সোমবার থেকেই শুরু হবে। জখম ছাত্রীর খোজ খবরও রাখা হচ্ছে বলে তিনি জানান।

head_ads