সরকারি ভাবে বালি খাদানের লিজ নিলেও, বালি তুলতে বাঁধা স্থানীয়দের

0

কিবরিয়া আনসারী, টিডিএন বাংলা, মুর্শিদাবাদ : সরকারি ভাবে বালি খাদানের লিজ নিলেও, বালি তুলতে বাঁধা স্থানীয়দের। বারং বার বাঁধার সম্মুখীন ক্রেতারা। টাকা দিয়ে ইসলামপুর ভৈরব নদীর বালি খাদানের লিজ নিয়েছে সালাম সেখ। টাকা দিয়ে বৈধ কাগজপত্র দিয়েই সে লিজ নিয়েছে। তবুও বালি তুলতে পারছে না বলে অভিযোগ সালামের। আমাদের ক্ষতি করে কেনো ব্যবসা করতে দেবো বলে পাল্টা অভিযোগ স্থানীয়দের। ঘটনাটি ইসলামপুরের চক জামাল পুর এলাকার।


বালি খাদানের মালিক সালাম সেখ বলেন, সতেরো সালে সরকারি ভাবে আমি বালির খাদানের লিজ নিয়েছি। ডিএম সাহেব আমাকে বৈধ কাগজ পত্রও দিয়েছেন। তবুও বালি তুলতে গেলে স্থানীয় কিছু অসাধু লোক আমাকে বাঁধা দিচ্ছে। প্রশাসনিক কর্তাদের জানিয়ে কোনো সুরাহা হয়নি। প্রচুর টাকা ব্যয় হয়েছে। তবুও আমি ব্যবসা চালু করতে পারছি না। বারং বার বাঁধার সম্মুখীন হতে হচ্ছে।

Advertisement
head_ads

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, সালাম বালির খাদানের লিজ নিলেও তার গাড়ি নিয়ে যাওয়ার কোনো রাস্তা নেই। ফলে আমাদের জমির উপর দিয়ে বালি বোঝাই গাড়ি যাতায়েত করছে এবং জমির ক্ষতি হচ্ছে, ফসল নষ্ট হচ্ছে। সে যদি বালির খাদানের লিজ নিয়েই থাকে তাহলে সে সরকারি রাস্তা দিয়েই গাড়ি গুলো নিয়ে যাক। আমাদের কেনো ক্ষতি করছে।

এই ঘটনাই এলাকাই চাঞ্চল্য ছড়ালে ঘটনাস্থলে বিশাল বাহিনী এসে পৌছায়। ঘটনাস্থলে রেভিনিউ অফিসারও আসেন। তারপর স্থানীয়দের বুঝিয়ে সমস্যা সমাধান করেন।


রেভিনিউ অফিসার দিলীপ কুমার মন্ডল বলেন, অভিযোগের ভিত্তিতে আমরা ঘটনাস্থলে এসে পুরো বিষয় খতিয়ে দেখলাম। যা সমস্যা হয়েছিল তা সমাধান করা হল। এরপর যদি আবারও সমস্যা হয়। তাহলে সেটা আর আমরা দেখব না।আমার দপ্তরও কোনো দায় নেবে না।

head_ads