বেলাল মোমিন, টিডিএন বাংলা, ফরাক্কা : ফারাক্কা ব্লকের অর্জুনপুর হাইস্কুলের ছাত্র হাকিম সেখ এবারে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় ৪২৬ নম্বর পেয়েছে। বিদ্যালয়ের মধ্যে সে দ্বিতীয় স্থানে। হাকিমের বাবা আসরাফুল সেখ পেশায় একজন ভ্যান চালক। মা বিড়ি শ্রমিক। কোনোও রকমে সংসার চলে। হাকিমের বাড়ি খোদাব্ন্দপুর গ্রামে। অভাবের তাড়নায় বই কেনা বা টিউশন নেওয়ার সামর্থ্য তার ছিলনা।

পড়াশোনার প্রতি তার আগ্রহ ও অদম্য মানসিকতা দেখে তাকে সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসেন অর্জুনপূর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক মহ: মনিরুদ্দিন বাবু | তিনি বই-খাতা, কলম ইত্যাদি দিয়ে সাহায্য করেন এবং পাশাপাশি স্থানীয় অগ্রদূত কোচিং সেন্টারের কর্ণধার আলতাব হোসেন হাকিম সেখকে বিনা মূল্যে কোচিং এর ব্যবস্থা করেন। দুই সহৃদয় ব্যক্তির সাহায্য ও বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষিকাদের অনুপ্রেরনাকে পাথেয় করে জীবনের দ্বিতীয় বড়ো পরীক্ষায় সফল হতে পেরে খুশি হাকিম সেখ ও তার পরিবার।

খুশি অর্জুনপুর এলাকার সাধারণ মানুষজনও। পড়াশোনার পাশাপাশি কবিতা লেখা হাকিমের শখ। তার জীবনের একমাত্র স্বপ্ন বাংলা অনার্সে স্নাতক ডিগ্রী অর্জন করে ডব্লুবিসিএস অফিসার হওয়া। কিন্তু এভাবে কতদিন! সে কী পারবে দারিদ্রের সমস্ত বাধাকে অতিক্রম করে তার স্বপ্নকে সফল করতে? প্রশ্নটা কিন্তু ঘুরপাক খাচ্ছে হাকিমের পরিবারে। বাবা আসরাফুল সেখ জানান, “অভাবের সংসারে কিভাবে ছেলের স্বপ্ন পুরণ করবো তা নিয়ে বড়ো চিন্তায় রয়েছি।”