কৌশিক সালুই, টিডিএন বাংলা, বীরভূম : কলকাতা উচ্চ আদালত এবং সুপ্রিম কোর্টে মাদ্রাসায় শিক্ষক নিয়োগ সংক্রান্ত মামলা বিচারাধীন। তা সত্ত্বেও বীরভূম জেলার কয়েকটি মাদ্রাসায় শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি জারির প্রতিবাদে পথে নামলো বেঙ্গল মাদ্রাসা এডুকেশন ফোরাম। বৃহস্পতিবার সিউড়িতে জেলা স্কুল পরিদর্শকের দ্বারস্থ হল সংগঠনের সদস্যরা। সংগঠনের দাবি অবিলম্বে অবৈধভাবে নিয়োগের প্রক্রিয়া বাতিল করতে হবে। স্কুল পরিদর্শক এর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে বিষয়টি উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হবে।

বেঙ্গল মাদ্রাসা এডুকেশন ফোরাম এর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, বীরভূম জেলার মারগ্রাম মাদ্রাসা, মেটেকোনা আবু তাহের সিনিয়র মাদ্রাসা এবং ভেরামারি হাই মাদ্রাসায় শিক্ষক নিয়োগ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছে। সেই বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে সংশ্লিষ্ট মাদ্রাসা গুলির স্থানীয় পরিচালন সমিতি। ইতিমধ্যেই মাদ্রাসার নিয়োগ সংক্রান্ত মামলা চলছে বিভিন্ন আদালতে।

মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশন না স্থানীয় পরিচালন সমিতি কে নিয়োগ করবে মাদ্রাসার শিক্ষক সেই নিয়ে আদালতে মামলা বিচারাধীন। সংগঠনের অভিযোগ, মামলা চলা সত্ত্বেও কিভাবে সংশ্লিষ্ট মাদ্রাসাগুলি নিয়োগ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে? এই বিজ্ঞপ্তি জারি প্রতিবাদে এদিন সিউড়ি তে জেলা স্কুল পরিদর্শক কে একটি স্মারকলিপি দেওয়া হয়। তাদের দাবি অবিলম্বে নিয়োগ প্রক্রিয়া বাতিল করতে হবে।

জেলা সভাপতি হাদিউজ্জামান বলেন, ‘মাদ্রাসার নিয়োগ সংক্রান্ত বিষয়টি এখন আদালতে বিচারাধীন থাকা সত্ত্বেও কিভাবে কমিটিগুলি শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে? অবিলম্বে সেই প্রক্রিয়া বাতিলের দাবি করছি আমরা। মেটেকোনা সিনিয়র হাই মাদ্রাসা তে এক শিক্ষক গত তিন বছর ধরে শিক্ষকতা করার জন্য বেতনের দাবি করেছেন শিক্ষা দপ্তরে। অন্য দিকে দেখা যাচ্ছে তিনি ঝাড়খন্ড রাজ্যে জওহর নবোদয় বিদ্যালয় এ ওই সময়ই কর্মরত ছিলেন এবং তার পারিশ্রমিকও পেয়েছেন। এক ব্যক্তি দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে একসঙ্গে কিভাবে একই সময়ে কাজ করে বেতনের দাবি করছেন দুই জায়গায়? সেই বিষয়টিও তদন্ত করে দেখা হোক। ‘

বীরভূম জেলা স্কুল পরিদর্শক সুজিত সরকার বলেন, সংগঠনের পক্ষ থেকে যেসব দাবি দাওয়া করা হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হবে এবং উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি জানানো হবে।
সংগঠনের পক্ষ থেকে এদিন উপস্থিত ছিলেন রাজ্য সভাপতি ইসরারুল হক মন্ডল, জেলা সভাপতি হাদিউজ্জামান এবং সম্পাদক পারভেজ হোসেন সহ প্রায় ৫০০ জন ফোরাম সদস্য।