টিডিএন বাংলা ডেস্ক : ইরানের ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী- আইআরজিসি’র কমান্ডার মেজর জেনারেল মোহাম্মাদ আলী জাফারি সিরিয়ায় মোতায়েন ইরানি সামরিক উপদেষ্টাদের জীবন রক্ষা করার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন। সিরিয়ায় অবস্থানরত ইরানি সামরিক উপদেষ্টাদের ওপর হামলা করা হবে বলে ইহুদিবাদী ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী যে হুমকি দিয়েছেন তাকে ‘কৌতুকপূর্ণ ও হাস্যকর’ বলে অভিহিত করেছেন তিনি।

জেনারেল জাফারি বুধবার এক বক্তব্যে বলেন, সিরিয়ার জনগণকে উগ্র জঙ্গিদের হাত থেকে রক্ষা করার লক্ষ্যে দেশটিতে মোতায়েন আমাদের সব সামরিক উপদেষ্টার পাশাপাশি সব সমরাস্ত্র ও সামরিক সরঞ্জামের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে।

সম্প্রতি ইহুদিবাদী প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু হুমকি দিয়ে বলেছিলেন, যতদিন ইরানি সামরিক উপদেষ্টারা সিরিয়া ত্যাগ না করবে ততদিন তাদের ওপর ‘হামলা বন্ধ করবে না’ তেল আবিব।

বিগত কয়েক বছর ধরে বিদেশি মদদ-পুষ্ট জঙ্গিদের হামলার মোকাবিলায় সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ সরকারকে পৃষ্ঠপোষকতা দিচ্ছে ইরান। কিন্তু ফিলিস্তিন দখলদার ইসরাইল সিরিয়ায় ইরানের সামরিক উপস্থিতিকে তার জন্য হুমকি হিসেবে নিয়েছে এবং এজন্য ইরানি সেনা অবস্থানে হামলা চালিয়ে যাওয়ার হুমকি দিয়েছে।

ইসরাইল এখন পর্যন্ত বহুবার সিরিয়ার একাধিক সামরিক ঘাঁটিতে হামলা চালিয়ে দাবি করেছে, এসব ঘাঁটি ইরানি সৈন্যরা ব্যবহার করছে বলে সেখানে হামলা চালানো হয়েছে।

এ সম্পর্কে আইআরজিসি’র কমান্ডার জাফারি নেয়ানিয়াহুকে উদ্দেশ করে বলেছেন, “আপনার হাস্যকর হুমকিকে আমরা মোটেই পাত্তা দেই না।”

জেনারেল জাফারি বলেন, সিরিয়ায় ইসরাইলি আগ্রাসনের মোকাবিলায় ইরান একটি বিশেষ করে ধৈর্য ধারণ করছে। তিনি নেতানিয়াহুকে সতর্ক করে দিয়ে বলেন, অচিরেই তেল আবিব সে কারণ উপলব্ধি করবে। জাফারি বলেন, “আপনাদের জেনে রাখা উচিত আপনারা সিংহের লেজ নিয়ে নাড়াচাড়া করছেন। আপনারা সেদিনের অপেক্ষায় থাকুন যেদিন ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র আপনাদের ঘাড়ের উপর এসে আঘাত হানবে এবং মধ্যপ্রাচ্যের মুসলমানদের যত রক্ত ঝরিয়েছেন তার প্রতিশোধ নেবে।