টিডিএন বাংলা ডেস্ক: বিশ্ব নারী চ্যাম্পিয়নশিপে চীনের সঙ্গে বিজয়ী হয়ে তুরস্কের সেনাবাহিনীকে সমর্থন দিয়ে সামরিক স্যালুট দিয়েছেন তুর্কিশ নারী বক্সার বুসেনাজ সুরমেনেলি। সীমান্ত নিরাপদ ও সন্ত্রাস দমনে উত্তর সিরিয়ায় কুর্দি যোদ্ধাদের বিরুদ্ধে অপারেশন পিস স্পিং অভিযান চালু করেছে তুরস্ক সরকার।
রাশিয়ায় অনুষ্ঠিত ২০১৯ সালের নারী বক্সিং চ্যাম্পিয়নশিপে স্বর্ণপদক জয়ী হয় সুরমেনেলি। পরে তুরস্ক ফিরে আসলে তাকে ট্র্যাবসন বিমানবন্দরে উষ্ণ অভ্যর্থনা জানানো হয়। ২১ বছর বয়সী এ নারী ক্রীড়াবিদ সিনিয়রদের মধ্যে এ প্রথমবারের মতো জয়ী হন।

এর আগে মঙ্গলবার তুরস্কের জাতীয় ফুটবল দলের খেলোয়াড়রা ইস্তাম্বুলের আলবেনিয়ার বিপক্ষে উয়েফা ইউরো ২০২০ বাছাইপর্বের পাশাপাশি সেন্ট-ডেনিসে ফ্রান্সের বিপক্ষে ম্যাচের সময় সামরিক স্যালুট দিয়ে একটি গোল উদযাপন করেছে।
সীমান্ত নিরাপদ, সিরিয়ার অখ-তা ও সিরিয়ান শরণার্থীদের ফিরিয়ে দিতে চলতি মাসের ৯ অক্টোবর থেকে উত্তর সিরিয়ায় অপারেশন পিস স্পিং শুরু করেছে তুর্কি সরকার। উত্তর সিরিয়ার পূর্ব ফোরাত নদী পিকেকে/পিওয়াইডি ও ওয়াইপিজে মুক্ত করতে চায় আঙ্কারা। আর এতেই খুশি ওই নারী বক্সার।