টিডিএন বাংলা ডেস্ক: দীর্ঘ রোগভোগের পর অবশেষে মারা গেলেন বাংলাদেশের সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। আজ সকাল ৭:৪৫ মিনিটে ঢাকার ক্যান্টনমেন্টের সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৯ বছর।
এরশাদের আত্মীয় ও জাতীয় পার্টির সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য খালেদ আখতার ও আন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর থেকে এরশাদের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। এদিকে জাতীয় সংসদে বিরোধী দলনেতা, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান, সাবেক রাষ্ট্রপতি ও সেনাশাসক হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুতে শোকাচ্ছন্ন বাংলাদেশ।

উল্লেখ্য, বেশ কিছুদিন থেকেই এরশাদের শারিরীক অবস্থার অবনতি হয়। গত এক সপ্তাহ যাবৎ তিনি লাইফ সাপোর্টে ছিলেন। তারপরেই আজ মৃত্যু বরন করেন তিনি। এরশাদের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

১৯৩০ সালে অবিভক্ত ভারতের কুচবিহার জেলায় জন্মগ্রহণ করেছিলেন এরশাদ। ১৯৮২ সালে তিনি সেসময় এর বাংলাদেশ এর রাষ্ট্রপতি আব্দুস সাত্তারকে ক্ষমতাচ্যুত করেন সামরিক শাসন শুরু করেন। দীর্ঘ নয় বছর পর সামরিক শাসন চালানোর পর গন বিক্ষোভের যেতে পদত্যাগ করতে বাধ্য হয়েছিলেন তিনি। রাজনীতির সাথে জড়িত হওয়ার ফলে তাকে একাধিক বার জেল যেতে হয়। পর পর সাংসদ নির্বাচিতও হন এরশাদ। ২০১৯ জাতীয় সংসদে বিরোধী দলনেতা ছিলেন তিনি।