নিজস্ব সংবাদদাতা, টিডিএন বাংলা: আল কুরআন একাডেমি লন্ডনের অষ্টম ইসলামী বইমেলা ব্যাপক সাড়া ফেলেছে ইউরোপে। টিডিএন বাংলাকে এমনটাই বললেন একাডেমির চেয়ারম্যান ড: হাফেজ মুনীর উদ্দিন আহমেদ।
২৩ নভেম্বর পূর্ব লন্ডনের এল এম সি হলে শুরু হয় ইসলামী বই মেলা। শেষ হয় ২৫ নভেম্বর। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশের সাবেক প্রধান নির্বাচন কমিশনার জাস্টিস আব্দুর রৌফ। উপস্থিত ছিলেন বহু ইসলামী পন্ডিত এবং মুসলিম সমাজের বিশিষ্টজনেরা। লন্ডন ইস্ট মসজিদের খতিব শায়েখ আব্দুল কাইয়ুম, হাফেজ মাওলানা শফিকুর রহমান,ডঃ আব্দুল বারি, মাওলানা আব্দুর রহমান মাদানী, মাওলানা মুসলেহ ফারাদী,কারী আশীকুর রহমান, হাবিবুর রহমান, মাহি ফেরদৌস জলিল প্রমুখ প্রথমদিন উপস্থিত ছিলেন।
অতিথিগণ ইসলামী বইমেলার ভূয়সী প্রশংসা করেন।
ভারতীয় উপমহাদেশে ইসলামী বইমেলার ধারণা নতুন বলে মনে হতে পারে। কিন্তু লন্ডনে এই বইমেলার মাধ্যমে বই প্রেমিকদের মাঝে এক উৎসবমুখী পরিবেশের সৃষ্টি হবে বলে অনেকে মনে করছেন। আগত অতিথিরা জানিয়েছেন, যারা বই প্রেমিক, ভাল বই পড়তে ভালবাসেন, তাঁরা এই বইমেলা থেকে ইসলামী বইসহ তাঁদের পছন্দের বই ক্রয় করার সুযোগ পাবেন।
বই মেলায় রেনেসাঁ সাহিত্য মজলিশের স্টলে ছিল ব্রিটেনের বিভিন্ন কবি, সাহিত্যিকদের প্রকাশিত বই। সেই সঙ্গে ছিল স্বরচিত কবিতা পাঠের আসর।
পূর্ব লন্ডনের এল এম সি হলে তিন দিনের এই বইমেলায় ব্রিটেনের অনেক সুখ্যাত আলেম, উলামা, লেখক, কবি, সাহিত্যিক এবং মুসলিম জাতির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। এ ছাড়াও পৃথিবীর বিভিন্ন জায়গার লোক অংশ নেন। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৬টা পযর্ন্ত দর্শনার্থীদের জন্য খোলা ছিল ইসলামী বই মেলা প্রাঙ্গন বইমেলায় কুরআনের তাফসীর, হাদীসসহ বিভিন্ন ইসলামীক বইয়ের বিশাল ভান্ডার ছিল।

আল-কুরআন একাডেমীর চেয়ারম্যান ডঃ হাফেজ মুনীর উদ্দিন বলেন, ইসলামী এই বইমেলার মাধ্যমে বই প্রেমিকদের মাঝে এক উৎসবমুখী পরিবেশের সৃষ্টি হয়। যারা বই প্রেমিক, ভাল বই পড়তে ভালবাসেন, তাঁরা এই বইমেলা থেকে তাঁদের পছন্দের বই ক্রয় করার সুযোগ পেয়েছেন।
জানে গেছে, ইসলামী বইমেলায় গত ৮ বছরে ৮০ হাজারেরও বেশি বই বিক্রি হয়েছে। তবে ব্রিটেনে ইসলামী বইমেলার উদ্যোগের প্রশংসা করেছেন কলকাতার মুসলিমদের অনেকেই।