টিডিএন বাংলা ডেস্ক: অবিশ্বাসল্য হলেও এটাই বাস্তব, সেতু ভেঙে নদীতে পড়ে গেল ট্রেনের পাঁচটি বগি। সোমবার সকালে মর্মান্তিক এই দূর্ঘটনাটি ঘটেছে বাংলাদেশের আন্তঃনগর উপবন এক্সপ্রেসে। এখন পর্যন্ত খবরে ৫ জনের মৃত্যু ও শতাধিক আহত হয়েছে বলে জানা গেছে। আহতদের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে সূত্রের খবর।

বাংলাদেশ রেল সূত্রে খবর, সিলেট থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে যাওয়ার সময় কুলাউড়া এলাকায় আন্তঃনগর উপবন এক্সপ্রেসে ঘটে যায় এই ভয়াবহ দুর্ঘটনা৷ সোমবার সকালে ট্রেনটির পাঁচটি বগি আচমকা লাইনচ্যুত হয়ে খালে পড়ে যায়৷ উল্টে যায় আরও একটি বগি৷ ঢাকা থেকে ৩০০ কিলোমিটার দূরে এই ঘটনাটি ঘটেছে।

সিলেট–ঢাকা সড়কপথে ভারী যান চলাচল বন্ধ থাকায় রেলপথের ওপরে চাপ বাড়তে থাকে। ফলে এদিনও যত যাত্রী ধারণের ক্ষমতা, তার থেকে অনেক বেশি যাত্রী ছিল দুর্ঘটনাগ্রস্ত ট্রেনটিতে৷ এই অতিরিক্ত ভারের জন্যই এই ভয়াবহ দুর্ঘটনা ঘটেছে বলে মনে করা হচ্ছে৷

ওই এলাকার পুলিস সুপার রশিদুল হাসান সংবাদসংস্থা এএফপি–কে জানিয়েছেন, আহতদের সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। মৃতের সংখ্যা নির্দিষ্ট করে কিছু জানাননি তিনি।

স্থানীয়দের সঙ্গে নিয়ে দমকল এবং রেল পুলিস প্রাথমিক উদ্ধার কাজ শুরু করে দিয়েছে৷ উত্তর–পূর্বের সমস্ত ট্রেন বাতিল করে দেওয়া হয়েছে এই দুর্ঘটনার জন্য। যদিও ট্রেন দুর্ঘটনা বাংলাদেশে নিত্যনৈমিত্তিক ঘটনা। কারণ এখানের সিগনালিং ব্যবস্থা অত্যন্ত দুর্বল। এই দুর্ঘটনার পরেই সিলেটের সঙ্গে ঢাকার ট্রেন যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে বলে খবর।