“আমরা বিশ্বের একটি শক্তিধর দেশ হিসাবে কঠোর ভাবে  সন্ত্রাসবাদের মোকাবিলা করব।”-ডঃ আলী আয়াতেক
টিডিএন বাংলা ডেস্ক : তুরস্কের ইস্তানবুলের  একটি ফুটবল স্টেডিয়ামের কাছে পর পর দুটি বিস্ফোরনে ২ জন সিভিল এবং ২৭ জন সিকিউরিটি গার্ড সহ ৩৮ জন নিহত এবং ১৫০ জন আহত হয়েছে বলে খবর পাওয়া গিয়েছে।
তুরস্ক থেকে গাজিয়ানতেপ শহরের সহকারী মেয়র এবং গাজিয়ানতেপ কল্যোন ইউনিভারসিটির সদস্য ডঃ আলী আয়াতেক টিডিএন বাংলাকে টেলিফোনে জানান, পুলিশ সদস্যদের লক্ষ্য করে একটি গাড়ি বোমা এবং একটি আত্মঘাতী বোমা হামলা চালায় দুষ্কৃতিরা। তিনি আরো বলেন “আমরা বিশ্বের একটি শক্তিধর দেশ হিসাবে কঠোর ভাবে  সন্ত্রাসবাদের মোকাবিলা করব।”তিনি আরও বলেন “এই হামলা সন্ত্রাসী পিকেকে বা আইএসআইএস ঘটিয়েছে।”
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, হামলার পর তারা গুলির শব্দও শুনেছেন। দর্শকরা স্টেডিয়াম ছেড়ে যাবার দুই ঘণ্টা পর ঐ হামলা চালানো হয়।এই ঘটনার পর প্রায় দশ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। সম্প্রতি তুরস্কের বড় শহরগুলিতে জঙ্গি হামলার পরিমাণ বেড়েছে।
এই ঘটনার পর তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তায়েফ এরদোগান বলেন, “আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী এবং নাগরিকদের ওপর একটি সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয়েছে”।
প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, এরিনা স্টেডিয়ামে তুরস্কের প্রধান দুটি ফুটবল দল বেসিক্টাস এবং বুরসাসপোরের মাঝে অনুষ্ঠিত হওয়া একটি ম্যাচের দুই ঘণ্টা পর হামলাটি চালানো হয়।