টিডিএন বাংলা ডেস্ক:সৌদি আরবের পবিত্র ভূমি ও মুসলিম উম্মাহর সর্বোচ্চ মর্যাদা-সম্মানের স্থান মক্কা নগরীর মসজিদুল হারাম তথা পবিত্র কাবা শরিফ এবং মদিনার মসজিদে নববিতে নিষিদ্ধ হল সেলফি তোলা, ছবি তোলা, ভিডিও করা। এমনটাই নির্দেশ জারি করেছে সৌদি আরবের সরকার। এই দুই পবিত্র মসজিদে ছবি তোলা ও ভিডিও ধারণ করার মতো কোনো মোবাইল বা ক্যামেরা নিয়ে প্রবেশ করা যাবে না।

মক্কা নগরীর কাবা শরিফ ও মদিনার মসজিদে নববিতে হজ ও ওমরায় গিয়ে ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা সেলফি তোলেন। এসব সেলফি তোলার কারণে অন্যান্য হজযাত্রীদের নানা রকমের সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। সে কারণে এমনটাই সিদ্ধান্ত বলে জানাগেছে।

পবিত্র নগরীতে সেলফি তোলার ক্ষেত্রে বিতর্কের সৃষ্টি হয়। সৌদির এ দুই পবিত্র নগরীতে অনেক আগে থেকেই তা নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন সময় এ সেলফির কারণে বিতর্কের মুখোমুখি হয়েছিল সৌদি কর্তৃপক্ষ। সে কারণে এবার পবিত্র নগরীতে সেলফি তোলায় জোরদার নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে সৌদির হারামাইন কর্তৃপক্ষ। যদি সেখানে কাউকে সেলফি তুলতে দেখলেই দায়িত্বে থাকা আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী বাজেয়াপ্ত করবে বলেও জানিয়েছে।

সৌদি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করলে নিরাপত্তারক্ষীদের নির্দেশ দেয়া হয়েছে ক্যামেরা বা মোবাইল ও ছবি বাজেয়াপ্ত করার জন্য। সংশ্লিষ্ট দেশের প্রত্যেক ওমরাহ ও হজ এজেন্সিকে এই নির্দেশ পালনের জন্য বলা হয়েছে।

উল্লেখ্য, সৌদি আরবের এই নিষেধাজ্ঞার সমালোচনা করছে ইন্দোনেশিয়া। তাদের মতে, পবিত্র স্থানে এসব ছবি ও ভিডিও ধারণ করা হয় স্মৃতি সংরক্ষণের জন্য। কারণ অনেকেই জীবনে মাত্র একবার এসব স্থানে যাওয়ার সুযোগ পান। মালয়েশিয়ার হজ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ এই নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে কিছু জানে না বলে জানিয়েছে। সৌদি কর্তৃপক্ষ আনুষ্ঠানিকভাবে এই নির্দেশনা পেলে তা কার্যকর করবে দেশটি।