টিডিএন বাংলা ডেস্ক: মেয়ের শ্লীলতাহানির অভিযোগ তুলে থানার দ্বারস্থ হয়েছিলেন মা। গ্রেপ্তারও হয়েছিল দুষ্কৃতীরা। কিন্তু পরে জামিন পেয়েই ওই যুবতীর মাকেই পিটিয়ে খুন করে দিলো দুষ্কৃতীরা। এমনই মর্মান্তিক ঘটনায় রীতিমতো চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে ইউপির কানপুরে।

সংবাদ মাধ্যম সূত্রে খবর, ২০১৮ সালে মেয়ের শ্লীলতাহানির অভিযোগ তুলে কানপুর পুলিশের দ্বারস্থ হয়েছিলেন ওই মহিলা। পুলিশ অভিযুক্ত ছয় দুষ্কৃতীকে গ্রেপ্তার করে। কিন্তু গত সপ্তাহের বৃহস্পতিবার তারা জামিনে মুক্তি পায়। ঠিক তার পরেই বাড়ি ঢুকে অভিযোগকারিণী ও তার মাকে মারধর করে দুষ্কৃতীরা। গুরুতর আহত হয়ে ওই মহিলাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে শুক্রবার তিনি মারা যান। যদিও ঘটনায় ফের তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলেও জানান কানপুর পুলিশ।