টিডিএন বাংলা ডেস্ক: টিকটক অ্যাপের কনটেন্ট কিশোরদের জন্য অনুপযুক্ত, কেন্দ্রকে বন্ধের নির্দেশ দিক মাদ্রাজ হাইকোর্ট। মাদুরাইয়ের এক আইনজীবী ও সমাজকর্মী মুথু কুমার টিকটককে নিষিদ্ধের দাবিতে মাদ্রাজ হাইকোর্টে পিটিশন দাখিল করেন৷ পিটিশনে তিনি উল্লেখ করেন, এই মোবাইল অ্যাপে অতিরিক্ত আসক্তির জেরে কমবয়সীদের মধ্যে সংস্কৃতির অবনতি ঘটছে৷ পর্ণগ্রাফি সহজলভ্য হয়ে যাচ্ছে৷ শিশুনিগ্রহ বাড়ছে৷

আদালতের মতে, টিকটক অ্যাপের কনটেন্ট কিশোরদের জন্য অনুপযুক্ত৷ এখানে পর্ণগ্রাফির মতো কনটেন্টও রয়েছে যা কমবয়সীরা সহজেই তার নাগাল পেয়ে যাচ্ছে৷ কারণ, অনেকে নিজেকে জনপ্রিয় করার জন্য অশ্লীল ভিডিয়ো পোস্ট করতেও পিছপা হয় না। তাছাড়া এই মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে স্কুল পড়ুয়ারা যেভাবে অনলাইনে অপরিচিতদের মাঝে নিজেদের শরীরকে এক্সপোজ করছে তা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বেঞ্চ৷

মাদ্রাজ হাইকোর্টের বিচারপতি এন কিরুভাকরণ ও বিচারপচি এসএস সুন্দরের নির্দেশে তিনটি জিনিস উঠে আসে৷ প্রথমত, টিকটক মোবাইল অ্যাপকে নিষিদ্ধ করতে হবে৷ দ্বিতীয়ত, টিকটক মোবাইল অ্যাপে তৈরি কোনও ভিডিয়ো মিডিয়া সম্প্রচারিত করতে পারবে না৷ তৃতীয়ত, কমবয়সীদের বিশেষত ১৮র কম বয়সীরা যাতে সাইবার অপরাধের শিকার না হয় তা আটকাতে আমেরিকার মতো চিলড্রেনস অনলাইন প্রাইভেসি প্রোটেকশন অ্যাক্ট চালু করা নিয়ে কী ভাবছে৷

বিচারপতিরা তাদের নির্দেশে ইন্দোনেশিয়া ও বাংলাদেশের কথা উল্লেখ করেন৷ এই দুই দেশে নিষিদ্ধ টিকটক৷ ভারতে প্রতিমাসে ৫৪ মিলিয়ন টিকটক ব্যবহার করে৷