টিডিএন বাংলা ডেস্ক: অনেক আগেই বাংলা, পাঞ্জাব সহ কয়েকটি রাজ্য জানিয়ে দিয়েছে তারা তাঁদের রাজ্যে জাতীয় নাগরিকপঞ্জি লাগু চালু করবেননা। এবার সেই তালিকায় নাম লেখালেন বিজেপি শরিক বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতিশ কুমার। শুক্রবার নীতিশ কুমার সংবাদসংস্থা এএনআইকে বলেন, তাঁর রাজ্যে জাতীয় নাগরিকপঞ্জি (এনআরসি) কার্যকর করা হবে না।

উল্লেখ্য, সদ্য পাশ হওয়া কেন্দ্রের বিতর্কিত সংশোধিত নাগরিকত্ব বিলের পক্ষে সংসদের উভয় কক্ষেই ভোট দিয়েছে বিহারের বিজেপির শরিক জেডি-ইউ। কিন্তু তা নিয়ে জেডি-ইউ-র অন্দরে ক্ষোভ দাঁনা বেঁধেছে। দলের নেতা প্রশান্ত কিশোর প্রকাশ্যেই তাঁর অসন্তোষের কথা জানিয়েছেন। এছাড়াও আরও কয়েকজন নেতা বিলে নীতিশের সমর্থনের সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছেন। দলের জাতীয় সম্পাদক তথা মুখপাত্র পবন কুমার ভার্মা গতকাল বৃহস্পতিবার নাগরিকত্ব আইনে জেডি-ইউ-র সমর্থনের সিদ্ধান্ত নিয়ে দল ছাড়ার ইঙ্গিতও দিয়েছিলেন। তিনি নাগরিকত্ব আইন ও এনআরসি নিয়ে দলের অবস্থান স্পষ্ট করার জন্যও নীতীশের কাছে দাবি জানিয়েছিলেন।

কদিন আগেই ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টানায়েকের দলও সংসদে সংশোধিত নাগরিকত্ব বিলের পক্ষে ভোট দিয়েছিল। পরে নবীন জানিয়েছিলেন যে, তিনি দেশজুড়ে এনআরসি-র সিদ্ধান্তকে সমর্থন করেন না। তিনি বলেছিলেন, সংশোধিত্ব নাগরিকত্ব আইনের সঙ্গে ভারতীয় নাগরিকদের কোনও সম্পর্ক নেই। এটা বিদেশীদের বিষয়। দলের সাংসদরা লোকসভা ও রাজ্যসভায় স্পষ্ট করে দিয়েছেন যে, বিজেডি এনআরসি সমর্থন করে না।