টিডিএন বাংলা ডেস্ক: ৩৭০ ধারা বাতিল করলে কাশ্মীরের মানুষের স্বাধীনতার পথ প্রশস্ত করা হবে। বিজেপির ইস্তেহার প্রকাশের পরেই শ্রীনগরে এক জনসভায় হুঙ্কার ন্যাশনাল কনফারেন্স নেতা ফারুক আবদুল্লার। একইসঙ্গে তিনি বিজেপিকে হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন, মানুষ মন ভেঙে গেছে, তা জোড়ার চেষ্টা করুন। আরো ভেঙে দেবেন না।

এদিন বিজেপি তার ইস্তেহারে কাশ্মীরের ৩৭০ ধারা বাতিল করার কথা পুনরায় বলেছে। এই ধারার ফলে উপত্যকার জন্য বিশেষ মর্যাদা উল্লিখিত রয়েছে। এই ধারা বাতিল হলে উপত্যকার মানুষ সেই সুবিধা থেকে বঞ্চিত হবেন। এই কারণে গর্জে উঠেছেন কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী।

এদিন নির্বাচনী প্রচারে ফারুক আবদুল্লা আরো বলেন, ওরা ৩৭০ ধারা বাতিলের কথা বলছে। আমি আল্লাহকে শপথ নিয়ে বলছি। এটাই বোধহয় সর্বশক্তিমানের ইচ্ছা। এরপর হয়ত আমরা স্বাধীনতা পাব। একইসঙ্গে তিনি আরো বলেন, ৩৭০ ধারা বাতিল হলে এখানে কেউ জাতীয় পতাকা তুলবে না।

৩৭০ নিয়ে বিজেপির অবস্থান

কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা নিয়ে এখন ও পর্যন্ত একই অবস্থানে রয়েছে বিজেপি। এদিনের ইস্তেহারে অমনি তথ্য পরিবেশিত রয়েছে। পাশাপাশি, কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার সমর্থনে দাবি জানায় বিজেপি।
এরপরেই হুঙ্কার ছাড়েন ফারুক। তিনি বলেন, বাইরে থেকে আসবেন, বসবাস করবেন, আর আমরা ঘুমিয়ে থাকব? আমার এর বিরুদ্ধে লড়ব। ৩৭০ কে কিভাবে বন্ধ করবে? আমরা দেখব ওরা কী করতে পারে!