কৌশিক সালুই, টিডিএন বাংলা, বীরভূম: এন পি আর এবং নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন বাতিলসহ বেশ কিছু দাবিতে বীরভূমের সিউড়ি রাজপথে নামলেন বাংলা সংস্কৃতি মঞ্চের সর্মথকরা। হাতে ছিল কয়েকশো মিটার দীর্ঘ জাতীয় পতাকা। উপস্থিত ছিলেন জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত প্রায় ১০ হাজারের বেশি মানুষ জন। সকলেরই একটাই দাবি কেন্দ্রের জনবিরোধী সরকারের জনবিরোধী কালাকানুন অবিলম্বে খারিজ করতে হবে।

এই দাবি নিয়ে তারা জেলাশাসকের কার্যালয়ে স্মারকলিপি প্রদান করলেন। উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের রাজ্য সভাপতি সামিরুল ইসলাম, অজয় রায়, আশরাফুল আমিন , রাজকুমার ফুলমালি, বিশ্বজিৎ রায় , সৌম শাহিন, রিপন, সুদীপ দাস,মারুইয়ুম খাতুন , মফিজুল ইসলাম , বাণীশ্বর বাগচী , বদরুজ্জামান, ইয়াসিন আক্তার সহ অন্যান্য বিশিষ্টজনরা। সংগঠনের আরও দাবি প্রতিটি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় আধার কার্ড সংশোধন ও সংযোজনের ব্যবস্থা করতে হবে এবং ভোটের কার্ড সংশোধনীতে সরলতা আনতে হবে।

বাংলা সংস্কৃতি মঞ্চ সংগঠনের দাবি এন আর সি ও নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন কার্যত সাধারণ মানুষের মনে একটা আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে । তাই তাদের সংগঠন পথে নামতে বাধ্য হয়েছে। সংগঠনের কর্মী-সমর্থকরা সিউড়ির চাদমারি মাঠে জমায়েত হয়ে সারা শহর জুড়ে মিছিল করে এবং জেলা শাসকের অফিস গিয়ে সংশ্লিষ্ট দাবিগুলো নিয়ে স্মারকলিপি প্রদান করেন।

এদিনের মিছিলে পায়ে পা মেলান হিন্দু , দলিত,মুসলিম,আদিবাসী সম্প্রদায়ের সমস্ত নাগরিক সমাজ।
বাংলা সংস্কৃতি মঞ্চের সভাপতি সামিরুল ইসলাম জানান ” বীরভূম জেলায় আদিবাসী দলিত সমাজ সম্প্রদায়ের মানুষ মিলেমিশে থাকে ।
ভারতবর্ষের স্বাধীনতা আন্দোলনে বাংলার অবদানে আমরা গর্বিত। কিন্তু আমরা দেশের শাসকের অনৈতিক নীতির ফলে পরাধীন। তাই আমরা আবার নতুন এক স্বাধীনতা আন্দোলনে নামতে বাধ্য হয়েছি। আমাদের শরীরে যত‍ক্ষণ পর্যন্ত শেষ রক্তবিন্দু রয়েছে ততক্ষণ কেন্দ্র সরকারের এই কালাকানুন আমরা কার্যকর হতে দেব না।