টিডিএন বাংলা ডেস্ক : দিন বদলায়নি। রাজনৈতিক ক্ষমতার পালাবদল হয়েছে। বিজেপি পরাজিত হয়ে এসেছে কংগ্রেস। কিন্তু এ সত্ত্বেও নিগ্রহ, অপমানের হাত থেকে মুক্তি নেই রাজ্যের বাসিন্দা দলিত সম্প্রদায়ের মানুষের। দলিতদের শুভ অনুষ্ঠানে একটু সমারোহ দেখলেই চটে যান উচ্চবর্ণের রাজপুত্ররা।কুলগৌরবের সম্মানহানি হয় তাদের!এরই আর একটি নজির রাজস্থানের দুগার গ্রামের ঘটনাটি।এখানে দলিত এক যুবকের বিয়ের শোভাযাত্রায় হামলা চালিয়েছে রাজপুতরা।

দলিতদের বিয়ের শোভাযাত্রা নিয়ে রাজপুতদের আপত্তি অবশ্য নতুন নয়। এ ধরণের অবমাননা,পীড়নের অনভিপ্রেত কাহিনী বিজেপি শাসিত রাজ্যগুলিতে দলিত সম্প্রদায়ের মানুষের জীবনের রোজনামচা।সম্প্রতি মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ শাসিত উত্তরপ্রদেশের কাশগঞ্জে সঞ্জয় জাটাভ নামে এক দলিত যুবক শোভাযাত্রা করে বিয়ে করতে গিয়েছেন।একজন দলিত হিসেবে এ ধরনের ঘটনা ঘটানোর সাহস গত ৮০ বছরের মধ্য কারওই হয়নি। বরং শোভাযাত্রা করে বিয়ে করতে গেলে দলিতদের উপর লাগাতার আক্রমণের ঘটনা ঘটছে দেশজুড়ে।প্রসঙ্গত,রাজস্থানে এ ধরনের ঘটনার সংখ্যা সর্বাধিক।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, দুগার গ্রামের বাসিন্দা পাত্রীকে বিয়ে করার উদ্দেশ্যে সাওয়াই রাম নামে ওই দুই যুবক গ্রামের দিকে, পরিজন, বন্ধুবান্ধব নিয়ে শোভাযাত্রা করে যাচ্ছিলেন। সে সময় স্থানীয় উচ্চবর্ণের রাজপুতেরা শোভাযাত্রা নিয়ে আপত্তি তোলে। ধারালো অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে চড়াও হয়।সাওয়াই রাম বলেছেন,আমাকে উদ্দেশ্য করে অশ্রাব্য গালিগালাজ করেছে। শোভাযাত্রায় অংশগ্রহণকারীদের উপর অস্ত্র নিয়ে হামলা চালিয়েছে। বিয়ে করতে যাওয়ার পথে পাত্রীর গ্রামে ঢোকার মুখে ঘটনাটি ঘটেছে বলে জানিয়েছেন সাওয়াই।

পুলিশ জানিয়েছে,সাওয়াইয়ের অভিযোগ রেকর্ড করা হয়েছে। এখনো পর্যন্ত ১২ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। কয়েকজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিয়েছেন পুলিশ কর্তারা।

প্রসঙ্গত, রাজস্থানের বাসিন্দা আদিবাসীদের উপর হেনস্তা ও নিগ্রহের ঘটনাও সারা দেশের নিরিখে সর্বাধিক। এছাড়া দেশের অন্য রাজ্যগুলির মধ্যে বিহার, উত্তরপ্রদেশ, মধ্যপ্রদেশের বাসিন্দা দলিতরা উচ্চবর্ণের দূর্বীষহ অত্যাচারের শিকার।দলিতদের বিয়ে শোভাযাত্রায় উচ্চবর্ণের হামলার ঘটনা সাম্প্রতিক সময়ে এই তিন রাজ্যে ঘটেছে। আট বছর আগে রাজস্থানের বাসিন্দা একজন দলিত যুবক গ্রামের উচ্চবর্ণের মুরুব্বিদের কাছে নিজের বিয়ের শোভাযাত্রা অনুমতি চাইতে গিয়েছিলেন। পত্রপাঠ ওই আবেদন নাকচ হয়ে যায়। গত বছরেও এক দলিত যুবক ঘোড়ায় চেপে বিয়ে করতে যাওয়ার পথে রাজস্থানের ভিলওয়াড়ায় উচ্চবর্ণের হামলার শিকার হয়েছেন।

Advertisement
mamunschool