টিডিএন বাংলা ডেস্ক : চারটি শব্দের ওপর সেন্সর বোর্ডের আপত্তি। তাই নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অমর্ত্য সেনের ওপর তৈরি তথ্যচিত্রের ছাড়পত্র আটকে দিয়েছে সেন্সর বোর্ড। আপত্তি তোলা শব্দ চারটি হলো কাউ, গুজরাট, হিন্দু ও হিন্দুত্ব।
সেন্সর বোর্ড তথ্যচিত্রের পরিচালক সুমন ঘোষকে তারা জানিয়ে দিয়েছে, এই শব্দ চারটি দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করবে। তাই এই শব্দ চারটি ‘মিউট’ করতে হবে। তবে সেন্সর বোর্ডের এই নির্দেশ মানবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন পরিচালক। তিনি বলেছেন, কোনো শব্দই তিনি বাদ দেবেন না বা মিউট করবেন না। তাই সুমন ঘোষ তথ্যচিত্রের ছাড়পত্র পেলেন না।
অমর্ত্য সেনের জীবনীভিত্তিক এই তথ্যচিত্রটির নাম দেওয়া হয়েছে ‘দ্য আর্গুমেনটেটিভ ইন্ডিয়ান’। এ তথ্যচিত্রের জন্য অমর্ত্য সেনের সাক্ষাৎকার গ্রহণ করেন তাঁরই ছাত্র কৌশিক বসু। সেই সাক্ষাৎকারেই অমর্ত্য সেন ওই চারটি শব্দ ব্যবহার করেছিলেন।
এ ঘটনায় তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন প্রখ্যাত কবি শঙ্খ ঘোষ। তিনি তাঁর প্রতিক্রিয়ায় বলেছেন, স্পর্ধা যে কত দূর পৌঁছেছে, এটা তার একটা লজ্জাজনক নজির। আর অমর্ত্য সেন বলেছেন, সরকারের আপত্তি থাকলে আলোচনা করুক। প্রখ্যাত অভিনেতা সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় বলেন, এটা মূর্খতা ছাড়া আর কিছু নয়। যে মানুষটিকে সারা বিশ্ব সম্মান করে, তাঁর মুখের কথা বাদ দিতে হবে। এটা মেনে নেওয়া যায় না। আরেক সাহিত্যিক নবনীতা দেব সেন বলেছেন, সেন্সর বোর্ড যা করেছে, তাতেই তো দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট হলো। সাহিত্যিক শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায় বলেছেন, মতপ্রকাশের স্বাধীনতার ওপর এটা একটা হস্তক্ষেপ।
তথ্যচিত্রের পরিচালক সুমন ঘোষ সেন্সর বোর্ডের এই নির্দেশ না মেনে বলেছেন, ভাবতে পারিনি সেন্সর বোর্ড এ ধরনের ঘটনা ঘটাবে। মানছি না সেন্সর বোর্ডের নির্দেশ।

Not available