প্রতীকী ছবি

টিডিএন বাংলা ডেস্ক: বৃহন্নলাদের অত্যাচারে মৃত‍্যু হল এক সদ্যোজাতের। বৃহন্নলাদের চরম অমানবিকার জন‍্যই এমন ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ। ঘটনাটি ঘটেছে ঝাড়গ্ৰামের শিলদায়। জানা গেছে, গত ৪ ডিসেম্বর শিলদার বাসিন্দা চন্দন খিলা যমজ পুত্র সন্তানের জন্ম দেন। কিন্তু যমজদের একজনের হার্টে সমস্যা দেখা দেয়। ফলে জন্মের পর থেকেই ঝাড়গ্রাম হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকার পর সবে মাত্র বাড়ি নিয়ে এসেছেন চন্দন। এদিকে খবর পেয়ে তার বাড়িতে পৌঁছায় বৃহন্নলাদের দল। অভিযোগ, শিশুটিকে তারা জোর করে কোলে নেয় এবং ১০ হাজার টাকা দাবি করে।

এরপর অসুস্থ শিশুটিকে নিয়ে লাফালাফি ও নাচানাচি শুরু করে। অসুস্থ রয়েছে বলে বার বার বারণ করা হলেও তা শুনেনি বৃহন্নলাদের দলটি। এর এরপরই একরত্তি সুমন ফের অসুস্থ হয়ে পড়ে বলে দাবি করেছেন বাড়ির লোকেরা। তার শ্বাসকষ্ট শুরু হয়ে যায়। তড়িঘড়ি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে। সেখানেই চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। বৃহন্নলাদের এমন অমানবিক ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে এই এলাকায়।

ঘটনার জেরে ব‍্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায় ওই এলাকায়। ঘটনায় বৃহন্নলাদের নামে বিনপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন শিশুটির বাবা মা। অভিযোগে ভিত্তিতে অভিযুক্ত বৃহন্নলাদের আটক করেছে বিনপুর থানার পুলিস।