টিডিএন বাংলা ডেস্ক : এবার সিনেমার নকল করা হল বাস্তবে। পর্দার মুন্নাভাই এমবিবিএস-এর জায়গায় এবার আইপিএস অফিসার সাফির করিম। মুন্নাভাই চরিত্রকে যেমন দেখা গিয়েছিল কানে ব্লুটুথ ডিভাইস লাগিয়ে পরীক্ষায় বসে ডাক্তারি এন্ট্রান্সে পাশ করেছিল। তেমনই এই আইপিএস অফিসার সাফির করিমও কানে ব্লুটুথ ডিভাইস লাগিয়ে সিভিল সার্ভিসের চূড়ান্ত পরীক্ষায় বসেছিলেন।

তামিলনাড়ুর তিরুনেলভেলির এএসপি পদে কর্মরত সাফির করিম। পদোন্নতির চেষ্টায় তিনি আইএএস পরীক্ষায় বসেন। পরীক্ষার সিট পড়েছিল চেন্নাইয়ের প্রেসিডেন্টি গার্লস হায়ার সেকেন্ডারি স্কুলে। তার স্ত্রী তাকে ব্লুটুথ ডিভাইসের মাধ্যমে হায়দরাবাদ থেকে উত্তর বলে দিচ্ছিলেন।

তবে এই কারচুপি পরীক্ষকের নজর এড়ায়নি৷ ফলস্বরূপ ধরা পড়ে যান করিম। হাজতবাসের সাজা হয় তার। সরকারি পরীক্ষায় নকলে সাহায্য করার অপরাধে করিমের স্ত্রীর বিরুদ্ধেও গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে।

সাফির করিম ২০১৪ সালে সিভিল সার্ভিসে উত্তীর্ণ হয়ে আইপিএসে যোগ দেন। তিরুনেলভেলির নানগুনেরি সাব ডিভিশনে তাঁর প্রশিক্ষণ চলছিল। এই অপরাধের জন্য করিমের চাকরিও খোয়া যেতে পারে বলে জানা যাচ্ছে।