টিডিএন বাংলা ডেস্ক: দেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহেরুকে অপরাধী হিসাবে আখ্যায়িত করলেন বিজেপি সাংসদ প্রজ্ঞা সিং ঠাকুর। নেহরুর বিরুদ্ধে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহানের বক্তব্যকে সমর্থন করে প্রজ্ঞা ঠাকুর প্রথম প্রধানমন্ত্রীকে ‘অপরাধী’ বলে অভিহিত করেন ভোপালের এই সাংসদ।

প্রজ্ঞা ঠাকুরের মতে, ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনী যখন পাকিস্তানি যোদ্ধাদের পিছনে ঠেলে দিচ্ছিল। তখন নেহেরু যুদ্ধবিরতির ঘোষণা দিয়েছিলেন। তিনি একজন ‘অপরাধী’ ছিলেন। উল্লেখ্য শিবরাজ চৌহান নেহরুকে পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরের (পিওকে)জন্য দায়বদ্ধ করেছিলেন। শিবরাজ বলেছিলেন যে, ভারতীয় সুরক্ষা বাহিনী যদি পাকিস্তানি সেনাবাহিনীকে পুরোপুরি কাশ্মীর থেকে বিতাড়িত করত তবে এই অঞ্চলটি ভারতের একটি অংশ হত।

শিবরাজের এই বক্তব্যকে সমর্থন করে ঠাকুর বলেছেন, যে কেউ দেশকে ক্ষতিগ্রস্থ কিংবা ভেঙে ফেলার চেষ্টা করে তাহলে ওই ব্যক্তি অপরাধী তাতে কোনও সন্দেহ নেই । এদিন যারা জম্মু ও কাশ্মীর সম্পর্কে সরকারের সিদ্ধান্তের সমালোচনা করছে তাদেরও একহাত নেন। তিনি বলেছেন যে, যারা জম্মু ও কাশ্মীরকে বিশেষ মর্যাদা দেওয়ার জন্য ধারা ৩৭০ এর বিধান বাতিল করার সমালোচনা করেন তারা দেশপ্রেমিক হতে পারেন না।