টিডিএন বাংলা ডেস্ক : শোকে পাথর হয়েছে দেশ। কাশ্মীরের পুলওয়ামায় সিআরপিএফ কনভয়ে জঙ্গি হানা নাড়িয়ে দিয়েছে দেশবাসীকে। দেশের এমন দুঃসময়ে তিনি কী করে পুরস্কার নিতেন! এই মুহূর্তে দেশের যা অবস্থা তাতে কোনওরকম অনুষ্ঠানের আয়োজনেই সায় নেই বিরাট কোহলির। তাই নজিরবিহীন সিদ্ধান্ত নিলেন ভারতীয় অধিনায়ক। পুলওয়ামা হামলার পরই তিনি গভীর শোকপ্রকাশ করেছিলেন। এবার শহীদদের শোকস্তব্ধ পরিবারের কথা ভেবে ইন্ডিয়ান স্পোর্টস অনার্স পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান পিছিয়ে দিলেন কোহলি।

বিরাট কোহলি ফাউন্ডেশনের তরফে এই অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়। সেখানে দেশের ক্রীড়ামহলের বর্ষসেরা ক্রীড়াবিদদের সম্মানিত করা হয়। গত বছর থেকে এই অনুষ্ঠান আয়োজন করা শুরু করেছেন কোহলি। ভারতীয় ক্রীড়াক্ষেত্রে উঠতি তারকাদেরও এই অনুষ্ঠানে পুরস্কৃত করা হয়। প্রথম বছরেই বেশ সাড়া ফেলেছিল বিরাট কোহলি ফাউন্ডেশনের আয়োজিত এই অনুষ্ঠান। নতুন তারকাদের অনুপ্রেরণা জোগাতে এই অনুষ্ঠানের কার্যকরী ভূমিকা নিয়েছিল বলে মত অনেকের। তাই এই বছরও আজ, ১৬ ফেব্রুয়ারি এই অনুষ্ঠান আয়োজিত হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু এই মুহূর্তে দেশের পরিস্থিতির কথা বিচার করে বিরাট অনুষ্ঠান পিছিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

এদিন টুইট করে বিরাট জানান, দেশের কাছে এটা দুঃসময়। এমন অপুরণীয় ক্ষতির মুহূর্তে আমরা এই ইভেন্ট পিছিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এই অনুষ্ঠানে ক্রীড়াক্ষেত্রের তারকাদের সঙ্গে উপস্থিত থাকার কথা ছিল বলিউডের অনেকের। বিরাট কোহলি ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে সবাইকে অনুষ্ঠান বাতিলের কথা জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।