টিডিএন বাংলা ডেস্ক: লকডাউনে বাড়ি যেতে পারেননি মাদ্রাসার পড়ুয়ারা। জাত ধর্ম না দেখে গুরুদ্বারায় তাদের খাওয়ানোর বন্দোবস্ত করলেন শিখ সম্প্রদায়ের মানুষ। এমনই নজিরবিহীন সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির চিত্র ধরা পড়লো পাঞ্জাবের মালেরকোঠা এলাকায়।

সংবাদমাধ্যম সূত্রের খবর, কোনোরকম অগ্রিম প্রস্তুতি ছাড়াই হঠাৎ করে লকডাউন হয়ে যাওয়ায় মাদ্রাসার ছাত্ররা কার্যত চরম সমস্যায় পড়েন। প্রায় ৪০ জন শিশু শিক্ষার্থী মাদ্রাসায় আটকে পড়ে কার্যত খাদ্য সামগ্রী নিয়ে চরম সঙ্কটে পড়েন। ঠিক সেসময় বিষয়টি খবর পেয়েই তাদের খাওয়ানোর উদ্যোগ গ্রহণ করেন গুরুদ্বারার প্রধান গ্রন্থী নরিন্দর পাল সিং। বিনামূল্যে দুবেলা খাবারের বন্দোবস্ত করা হয় তাদের। গুরুদ্বারার দায়িত্বে থাকা কুলদীপ সিং জানা, প্রতিদিনই দু’বেলা মিলিয়ে হাজার দেড়েক মানুষের খাবারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। স্থানীয় মহিলারা রান্না করছেন। মাদ্রাসার ছাত্রদেরও খাওয়ানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে। এদিকে লকডাউনের এই পরিস্থিতিতে তাদের খাওয়ানোর ব্যবস্থা করায় খুশি মাদ্রাসা পড়ুয়ারা।