সামাউল্লাহ মল্লিক, টিডিএন বাংলা, কলকাতা : বৃহস্পতিবার রানি রাসমণি রোডে অনুষ্ঠিত দলিত-মুসলিমদের বিশাল জনসভায় বিজেপি-আরএসএসকে একহাত নিলেন জামায়াতে ইসলামী হিন্দের রাজ্য সভাপতি মুহাম্মদ নুরুদ্দিন। তিনি অযোধ্যা ইস্যুকে ‘ধর্মের আড়ালে’ সংকীর্ণ রাজনৈতিক ইস্যু বলে উল্লেখ করেছেন।

এদিন তিনি বলেন, ‘সকল ধর্ম ও সম্প্রদায়ের মানুষের ঐক্যবদ্ধ সংগ্রামের মধ্য দিয়ে ভারত স্বাধীনতা লাভ করে। অথচ সাম্প্রদায়িক কিছু দল দেশকে টুকরো টুকরো করে দেয়। সেই বিচ্ছিন্নতাবাদী শক্তি আজকের ভারতের ক্ষমতায়। এরা মানুষকে বিভ্রান্ত করে, বিভক্ত করে, নিজেদের মধ্যে লড়াই লাগিয়ে দিয়ে দেশ শাসন করতে চায়।’

জামায়াত নেতা বলেন, ‘ব্রিটিশের নির্দেশ মেনে চলা বিজেপি-আরএসএস দেশের শত্রু। তারা দলিত আদিবাসী ও সংখ্যালঘু মুসলিমদের দাবিয়ে রাখতে চায়। এরা সাম্প্রদায়িক। এরা সংবিধান মানেনা।সংবিধানকে অবমাননা করার জন্য বাবা সাহেব আম্মেদকর এর প্রয়াণ দিবসকে বেছে নিয়েছে বাবরি ধংসের জন্য। এই সাম্প্রদায়িক শক্তি দেশের শত্রু। এরা কখানোই দেশের জন্য চিন্তা করেনা।’

তিনি বিজেপিকে কটাক্ষ করে আরও বলেন, ‘দেশের অর্ধেক জনগন অভুক্ত অবস্থায় রাতে ঘুমাতে যায়। কৃষক আত্মহত্যা করে। অথচ এরা মূর্তি নির্মাণ আর মসজিদ মন্দির নিয়ে ব্যাস্ত। এই অপশক্তির বিরুদ্ধে আজ আমাদের লড়তে হবে।’