টিডিএন বাংলা ডেস্ক: ফাদার্স ডে। সোশ্যাল মিডিয়ায় সকাল থেকে ভেসে আসছে বাবা-মেয়ে, বাবা-ছেলের ভালোবাসার সব সুন্দর মুহূর্ত। এরই মাঝে যোগীর রাজ্যে পড়াশুনো করতে চাওয়ায় মেয়েকে কোপানোর ঘটনা সামনে এল। বিয়ে করতে রাজি না হওয়ায় নিজের ১৫ বছরের মেয়েকে ছুরি দিয়ে কুপিয়ে খালে ফেলে দিল বাবা। উত্তর প্রদেশের শাহজাহানপুরের ঘটনা। হাসপাতালে মৃত্যু সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে ওই কিশোরী। বিয়ে নয়, পড়াশোনা করতে চেয়েছিল সে। তাতে সায় ছিল না বাবার। অভিযোগ, সে কারণে নিজের ছেলের সঙ্গে মিলে তাকে খুনের পরিকল্পনা করেন ওই ব্যক্তি। এর পর পরিকল্পনা মতো কিশোরীকে নির্জন জায়গায় নিয়ে গিয়ে ছুরি দিয়ে বার বার আঘাত করে ফেলে দেওয়া হয় খালের জলে। ঘটনার তদন্তে নেমেছে পুলিশ।উত্তরপ্রদেশ পুলিশ জানিয়েছে, বছর পনেরোর ওই কিশোরী শাহজাহানপুর জেলার বাসিন্দা। পুলিশের কাছে তার অভিযোগ, বিয়ে করতে রাজি না হওয়ায় বাবা ও দাদা মিলে তাকে খুন করতে চেয়েছিলেন। শাহজাহানপুরের এএসপি দীনেশ ত্রিপাঠী জানিয়েছেন, এই অভিযোগের তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এখনও পর্যন্ত কোনও গ্রেফতারি না হলেও তিনি বলেন, কিশোরীর বয়ান রেকর্ড করা হয়েছে। সব দিক খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রমাণ মিললে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে।