টিডিএন বাংলা ডেস্ক : মোদি সরকারের ‘স্বচ্ছ ভারত’ বিষয়ে প্রচার চালাতে গিয়ে বিরূপ মন্তব্য করে সমালোচিত হলেন বিহারের আওরঙ্গবাদের জেলা ম্যাজিস্ট্রেট কানওয়াল তনুজ। তিনি বলেছেন, বাড়ি বাড়ি শৌচাগার বানাতে হবে। যদি অর্থ না থাকে, বউ বেচে দেওয়ার পরামর্শ দেন তিনি।
এনডিটিভি অনলাইনের খবরে বলা হয়েছে, আওরঙ্গবাদ জেলার এক গ্রামে গিয়ে সরকারি কর্মকর্তা গত শনিবার এ মন্তব্য করেন। সেখানকার এক সভায় তিনি বলেন, ‘একটি শৌচাগার বানাতে মাত্র ১২ হাজার টাকা লাগে। হাত তুলুন, আপনাদের কার কার বউয়ের মূল্য ১২ হাজার টাকার কম? যদি পারেন নিজের স্ত্রীর সম্ভ্রম রক্ষা করুন।’
কানওয়াল তনুজের এই বক্তব্য শুনে গ্রামের এক বাসিন্দা হাত তুলে বলেন, বাড়িতে শৌচাগার বানানোর মতো অর্থ তাঁর কাছে নেই। এই উত্তর শুনে তিনি বলেন, ‘যদি আপনার কথা সত্যি হয়, তবে বাড়ি গিয়ে বউ বেচে দিন।’
এই সরকারি কর্মকর্তার মন্তব্যে সমালোচনার ঝড় বইছে। সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে রাজনৈতিক দলের নেতারা নারী অবমাননার জন্য তাঁর তীব্র সমালোচনা করছেন।
সমাজবাদী দলের স্থানীয় নেতা যূথী সিং বলেছেন, ‘সরকারি কর্মকর্তা হলেই কেউ এভাবে যা তা বলতে পারেন না।’ বিহারের ক্ষমতাসীন দল জনতা দলের নেতা রাজীব রঞ্জন বলেন, ভালো কর্মকর্তা হিসেবে তাঁর সুনাম আছে। তবে তিনি যা বলতে চেয়েছেন, তা ঠিকভাবে বলতে পারেননি। তিনি যা বলেছেন, তা ঠিক বলেননি।