টিডিএন বাংলা ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী দেশে জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণের জন্য জোর দেওয়ার পরে শুক্রবার বিজেপির প্রধান মিত্র শিবসেনা মুসলিম সম্প্রদায়ের একটি অংশকে নিশানা করেছে। শিবসেনা স্বাধীনতা দিবসের ভাষণে প্রধানমন্ত্রী প্রদত্ত বার্তাকে সমর্থন করেছে।

শিবসেনার মুখপাত্র সামানার সম্পাদকীয় অভিযোগ করেছে যে, সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের একটি অংশ জনসংখ্যা বৃদ্ধি রোধের গুরুত্ব বুঝতে পারে না। এই নিবন্ধে, দলটি অভিযোগ করেছে, “মৌলবাদী মুসলমানরা জনসংখ্যা বিস্ফোরণ সম্পর্কে উদ্বিগ্ন নয় এবং ‘আমরা দু’জন, আমাদের দুই সন্তান’ এর মানসিকতা থেকে বেরিয়ে আসতে প্রস্তুত নন।”

সম্পাদকীয়টিতে বলা হয়েছে, “সুতরাং তিনি জনসংখ্যা বিস্ফোরণ এবং ‘এক জাতি এক নির্বাচন’ ধারণাটি বাস্তবায়িত করবেন।”

শিবসেনা বলেছে যে, মোদীর এই যুক্তির সাথে তারা একমত হয়েছে যে সমাজের একটি বড় অংশ জনসংখ্যা বিস্ফোরণের ঝুঁকি বোঝে এবং পরিবার পরিকল্পনা করে।

শিবসেনার সাংসদ ও দলের মুখপাত্র সঞ্জয় রাউত মুম্বইয়ে সাংবাদিকদের বলেছেন, “আমরা খুশি যে মোদী সরকার শিবসেনার নীতিগুলিকে আগে বাড়িয়ে নিয়ে যাচ্ছে । প্রয়াত বাল ঠাকরে সর্বদা জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণের প্রয়োজনীয়তার উপর জোর দিয়েছিলেন।” এনডিএ সরকারের নেতৃত্বে শিবসেনার নীতিমালা অনুমোদন করা হচ্ছে। এটি শুধু জাতীয় স্বার্থে।

উল্লেখ্য, স্বাধীনতা দিবসের ভাষনে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যা নিয়ে বলেছিলেন,” দেশে জনসংখ্যা বিস্ফোরণ আগত প্রজন্মের জন্য বিভিন্ন সমস্যা তৈরি করবে। যারা ছোট পরিবারের নীতি অনুসরণ করে তারাও জাতির উন্নয়নে অবদান রাখে, এটিও একরকম দেশপ্রেম।”