টিডিএন বাংলা ডেস্ক: খুব শীঘ্রই দেশের বাকি রাজ‍্যগুলিতেও এনআরসি চালু করা হবে। এনআরসির তালিকার বাইরে যারা থাকবে, আইনি পথেই তাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হবে, ফের আরও একবার এনআরসির কথা শুনালেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ। রাজধানী দিল্লিতে এক সংবাদপত্রের অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, অসমে যে তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে, সেটির নাম কিন্তু ‘অসম রেজিস্টার অফ সিটিজেনস’ নয়, ‘ন্যাশনাল রেজিস্টার অফ সিটিজেনস’।এরপর একই ভাবে পুরো দেশে লাগু হবে এনআরসি।

এদিন অমিত শাহ বলেন, আমেরিকা, রাসিয়া, ব্রিটেনে কি কোনও ভারতীয় বেআইনি ভাবে থাকতে পারে? তাহলে কিভাবে অন্য দেশের বাসিন্দারা কোনও বৈধ কাগজপত্র ছাড়াই ভারতে থাকতে পারেন? এনআরসি প্রসঙ্গ নিয়েই আগামী ১ অক্টোবর কোলকাতার এক নাগরিক সম্মেলনেও কথা বলার পরিকল্পনা রয়েছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর।

উল্লেখ্য, অসমে চলতি বছরের ৩১ আগস্ট জাতীয় নাগরিক পঞ্জির চুরান্ত তালিকা প্রকাশিত হয়েছে। তাতে প্রায় ১৯ লক্ষ বাসিন্দার নাম বাদ পড়েছে। এমনকি বিজেপির তরফে এনআরসি নিয়ে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছিলো। কিন্তু বিজেপিরই একাধিক নেতা প্রক্রিয়াটির নির্ভুলতা নিয়ে প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছেন।তার পরেও আমিত শাহ্‌ চিরাচরিত ঢঙেই এনআরসি সমর্থন করে এসেছেন।এদিনও তাঁর ব্যাতিক্রম হয়নি।

এদিনও তিনি বলেন, ‘দেশের বাকি অংশেও আমরা এনআরসি চালু করব।’ যারা ওই তালিকার বাইরে থাকবেন, তাদের ব্যাপারে আইনি পথেই পদক্ষেপ করা হবে। এর মধ্যে রাজনীতি খোঁজা যে অর্থহীন, সে বার্তাও দেন তিনি।