টিডিএন বাংলা ডেস্ক: ইউপিএ জমানায় বহু সার্জিক্যাল স্ট্রাইক হয়েছিল। আমাদের কাছে সেনা অভিযানের অর্থ ছিল ভারত বিরোধী শক্তিকে জবাব দেওয়া, ভোট বাক্স ভরাট করা নয়। গত ৭০ বছর কখনো সশস্ত্র বাহিনীর গৌরবের পিছনে লুকাতে হয়নি কোনো ক্ষমতাসীন সরকারকে। ঠিক এই ভাষাতেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে আক্রমণ করলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী তথা প্রবীন কংগ্রেস নেতা মনমোহন সিং। জাতীয় নিরাপত্তায় সমঝোতা করেছে ইউপিএ সরকার। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি তথা বিজেপি নেতারা বারবার এই অভিযোগ করে আসছেন।এবার তাদের জবাব দিতে আসরে নামলেন খোদ প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং। একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে মনমোহন জানালেন, তার আমলে অনেকগুলি সার্জিক্যাল স্ট্রাইক হয়েছিল। কিন্তু তা নিয়ে ফলাও করে প্রচার করেনি ইউপিএ সরকার। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর মতে, সেনার সাফল্য ছিল কৌশলগত পদক্ষেপ এবং ভারত বিরোধী শক্তি গুলিকে মোক্ষম জবাব দেওয়ার অস্ত্র। এই সাফল্যকে কোনভাবেই ভোট প্রচারের কাজে লাগানো হয়নি। তাঁর মতে, সেনাবাহিনীর অভিযান নিয়ে রাজনীতি করা লজ্জাজনক। এর আগে তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী তথা প্রথম ইউপিএ আমলের মন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও দাবি করেছিলেন, মনমোহনের জমানায় অন্তত ১১ বার সার্জিক্যাল স্ট্রাইক করেছিল ভারতীয় সেনা। কিন্তু এই সাফল্যকে ব্যবহার করে প্রচারের আলোয় আসার চেষ্টা করেনি কংগ্রেস। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর এ দিনের মন্তব্যে যেন সেই সুর। মনমোহন বলেন, ইউপিএ সরকারের আমলে জাতীয় নিরাপত্তা সমঝোতা করার অভিযোগ একেবারেই গ্রহণযোগ্য নয়। পুলওয়ামায় দেশের সবচেয়ে সুরক্ষিত জাতীয় সড়কে জঙ্গি হামলায় ৪০ জন জওয়ানের মৃত্যু হল। এটা দুঃখজনক। এটা উদ্বেগজনক নিরাপত্তার গাফিলতি।