টিডিএন বাংলা ডেস্ক: ধাক্কা খেল আদানি গোষ্ঠী। আদিবাসীদের লাগাতার আন্দোলনের জেরে শেষপর্যন্ত দান্তেওয়াড়ায় বায়লাডিয়ায় পাহাড় এলাকায় আদানিদের খনি প্রকল্প বন্ধ করার কথা ঘোষণা করল রাজ্য সরকার। গ্রামসভার সম্মতি নিয়ে যে বিতর্ক তৈরি হয়েছে, তা নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে ছত্তিশগড়ের সরকার।

গত শুক্রবার আদিবাসীরা খনি প্রকল্পের বিরুদ্ধে আন্দোলন করেন। লাগাতার আন্দোলন স্তব্ধ প্রকল্পের কাজ। ক্রমেই চাপের মুখে পড়ে ছত্তিশগড়ের কংগ্রেস সরকার। মঙ্গলবার কংগ্রেসের একটি প্রতিনিধি দল দেখা করেন মুখ্যমন্ত্রী ভূপেশ বাঘেলের সঙ্গে। সেখানেই আদানি গোষ্ঠীকে কাজ বন্ধ করার সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়।

জমি অধিগ্রহণের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ গ্রাম সভার অনুমতি। রাজ্য সরকার জানায়, গ্রাম সভার অনুমতি মেলার পর প্রকল্পের কাজে সবুজ সঙ্কেত দেওয়া হয়। অভিযোগ, সরকার কারচুপির আশ্রয় নেয়। ছত্তিশগড়ের সিপিএম রাজ্য সম্পাদক সঞ্জয় পারাতে একে আন্দোলনের জয় হিসেবে দেখছেন। কারণ সরকারকে পিছু হটতে হল। অভিযোগ, সরকারের সঙ্গে কর্পোরেট আঁতাতের ফলে লুঠ হচ্ছে জল, জঙ্গল, জমি। রাজ্য সরকার চায় না তদন্ত করে সত্য বেরিয়ে আসুক। মন্তব্য অন্যতম আন্দোলনকারী অলোক শুক্লের। আন্দোলনকারীদের মধ্যে খুশির জোয়ার। অলোক শুক্ল বলেন, স্থায়ীভাবে খনি খনন না করার সিদ্ধান্ত নিতে হবে সরকারকে। সিপিআই নেতা মণীশ কুঞ্জম জানিয়েছেন, সরকার স্পষ্ট করে জানাক বরাত বাতিল করা হয়েছে। সংযুক্ত পঞ্চায়েত জন সংঘর্ষ বৈঠক করে আন্দোলনের ভবিষ্যৎ রূপরেখা ঠিক করার কথা জানান মণীশ। তাঁর মতে স্থানীয়দের জীবন জীবিকা সুরক্ষিত করতে আরও বড় আন্দোলন করা হবে।