স্পোর্টস ডেস্ক, টিডিএন বাংলা : তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের শেষ ম্যাচে মুখোমুখি হয়ে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে সিরিজ জিতলো ভারতীয় দল। মাত্র ৬ রানের ব্যবধানে জয় এসেছে মেন ইন ব্লুর দখলে। আজ কানপুরের গ্রিন পার্কে মাঠে নামে দুই দল। টস জিতে আগে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন নিউজিল্যান্ড দলপতি কেন উইলিয়ামসন। রোহিত শর্মা আর বিরাট কোহলির সেঞ্চুরিতে ‘অলিখিত ফাইনাল’ এ টিম ইন্ডিয়া নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে তোলে ৩৩৭ রান। জবাবে, নিউজিল্যান্ড ৭ উইকেট হারিয়ে ৩৩১ রান তুলতে সক্ষম হয়।

 


ভারতের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যচে জয় পায় নিউজিল্যান্ড। দ্বিতীয় ম্যাচ জিতে সিরিজে সমতা নিয়ে আসে বিরাট কোহলির দল। তাই কানপুরে সিরিজের এই ম্যাচটি হয়ে গেছে সিরিজ-নির্ধারণী বা অলিখিত ফাইনাল ম্যাচ। ব্যাটিংয়ে নেমে ভারতের ওপেনার শিখর ধাওয়ান ২০ বলে ১৪ রান করে সাজঘরে ফেরেন। আরেক ওপেনার রোহিত শর্মা ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ১৫তম সেঞ্চুরি তুলে নেন। দলপতি কোহলি তুলে নেন ক্যারিয়ারের ৩২তম সেঞ্চুরি। আগের দুই ম্যাচে ২০ ও ৭ রান করা রোহিত শর্মা ১৩৮ বলে করেন ১৪৭ রান। তার ইনিংসে ছিল ১৮টি চার আর দুটি ছক্কার মার।

 


এদিকে, শচীন টেন্ডুলকারের পেছনে থেকে ওয়ানডে ইতিহাসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩২টি সেঞ্চুরি করা কোহলি ১০৬ বলে করেন ১১৩ রান। তার ইনিংসে ছিল ৯টি চার আর একটি ছক্কার মার। হারদিক পান্ডিয়া ৮ রানে বিদায় নেন। ভারতের প্রাক্তন দলপতি মহেন্দ্র সিং ধোনি ১৭ বলে করেন ২৫ রান। কেদার যাদব ১০ বলে ১৮ রানে ইনিংসের শেষ বলে বিদায় নেন। নিউজিল্যান্ডের টিম সাউদি ও মিচেল স্যান্টনার দুটি করে উইকেট নেন। দুটি উইকেট পান অ্যাডাম মিলনে। ট্রেন্ট বোল্ট, ডি গ্রান্ডহোম আর কলিন মুনরো কোনো উইকেটের দেখা পাননি।

 

 

৩৩৮ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে নিউজিল্যান্ডের ওপেনার মার্টিন গাপটিল ১০ রানে বিদায় নিলেও ব্যাটে ঝড় তোলেন কলিন মুনরো। ৬২ বলে সাতটি চার আর তিনটি ছক্কায় তিনি করেন ৭৫ রান। তিন নম্বরে নামা দলপতি কেন উইলিয়ামসন ৮৪ বলে আটটি চারের সাহায্যে করেন ৬৪ রান। রস টেইলরের ব্যাট থেকে আসে ৩৯ রান। টম ল্যাথাম রানআউট হওয়ার আগে ৫২ বলে সাতটি চারের সাহায্যে করেন ৬৫ রান। হেনরি নিকোলস ২৪ বলে ৫টি চার আর একটি ছক্কায় করেন ৩৭ রান। শেষ দিকে মিচেল স্যান্টনার (৯) আর ডি গ্রান্ডহোম (৮) দলকে জেতাতে পারেননি। জাসপ্রিত বুমরাহ তিনটি আর যুভেন্দ্র চাহাল দুটি করে উইকেট নেন।