টিডিএন বাংলা ডেস্ক: ফের শোকের ছায়া ক্রীড়াজগতে। প্রয়াত কিংবদন্তি ফুটবলার চুনী গোস্বামী তথা সুবিমল গোস্বামী। ফুটবলের মাঠে তিনি চুনী গোস্বামী নামেই পরিচিত। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮২ বছর। ভারতীয় ফুটবলের সর্বকালের সেরাদের অন্যতম তিনি। বৃহস্পতিবার সকালে অসুস্থতা বোধ করায় এসেছিলেন হাসপাতালে। বিকেল ৫.৩০ নাগাদ মৃত্যু হয় তাঁর। বার্ধক্যজনিত কারণেই মৃত্যু, জানিয়েছেন পরিবারের মানুষ।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, ডায়াবেটিসের কারণে অসুস্থ ছিলেন তিনি। শরীর থেকে জল বার করতে হত নির্দিষ্ট সময় অন্তর। সেই কারণেই হাসপাতালে এসেছিলেন, জানিয়েছেন হাসপাতালের চিকিৎসকরা।

আট বছর বয়সেই মোহনবাগান জুনিয়র দলে যোগ দেন সুবিমল গোস্বামী। ১৯৪৬ থেকে ১৯৫৪ সাল পর্যন্ত বাগানের জুনিয়র দলে খেলার পর সিনিয়র দলে সুযোগ পান তিনি। দীর্ঘ ফুটবল জীবনে মোহনবাগানের হয়েই খেলেন। অবসর নেন ১৯৬৮ সালে। ১৯৬০ থেকে ১৯৬৪ সাল পর্যন্ত পাঁচ বছর বাগানের অধিনায়ক ছিলেন তিনি। সবুজ-মেরুন জার্সিতে ২০০ গোল করেছেন চুনী গোস্বামী। সন্তোষ ট্রফিতে বাংলার প্রতিনিধিত্ব করেছেন স্ট্রাইকার সুবিমল। সন্তোষেও ২৫ গোল তাঁর নামের পাশে। তাঁর নেতৃত্বে ১৯৬২-এর এশিয়ান গেমসে সোনা জেতে ভারত। ১৯৬৪-এর এশিয়া কাপে তাঁর নেতৃত্বে রুপো জয় করেন। ১৯৬৮-এ ফুটবল থেকে অবসর নেন। তারপর ভারতীয় ফুটবল দলের কোচিংও করেছেন।

ভারতীয় ফুটবলের প্রবাদপ্রতিম ব্যক্তিত্ব। যাঁর প্রয়াণে আর একবার নিঃস্ব হল এদেশের ক্রীড়াজগৎ। তবে, নতুন প্রজন্মের মনে তিনি জেগে থাকবেন অনুপ্রেরণা হয়ে।