টিডিএন বাংলা ডেস্ক: দেশজুড়ে চলছে লকডাউন। বন্ধ কাজ। তীব্র আর্থিক সংকট। একদিকে করোনার বিরুদ্ধে যেমন লড়াই, তেমনি অন‍্যদিকে গরীব মানুষগুলোর একমুঠো খাবারের জন্য জীবন মরণের লড়াই শুরু হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে ৪ হাজার গরীব অসহায় মানুষকে আর্থিক সাহায্য করলেন ক্রিকেটের বিশ্ময় বালক শচীন টেন্ডুলকার। শুধু তাই নয় এর আগেই তিনি ৫ হাজার দুঃস্থকেও খাওয়ানোর দায়িত্ব নিয়েছিলেন। এবার চার হাজার গরিব মানুষকে আর্থিক সাহায্য করলেন শচীন। যাঁদের মধ্যে রয়েছে বৃহন্মুম্বই পুরনিগমের অন্তর্গত স্কুলের শিশুরাও। মুম্বইয়ের একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা Hi5 ‌ইউথ ফাউন্ডেশনে ওই গরিব মানুষগুলির জন্য আর্থিক সাহায্য দিয়েছেন তিনি। যদিও সাহায্যের জন্য কত অর্থ দিয়েছেন তা জানা যায়নি।

মাস্টার ব্লাস্টারকে ধন্যবাদ জানিয়ে টুইট করেছে সংস্থাটি। বলেছে, ‘‌এই কঠিন সময়ে আরও একবার এগিয়ে আসার জন্য ধন্যবাদ। করোনা মোকাবিলায় ত্রাণ তহবিলে আপনার অনুদান চার হাজার দুঃস্থকে অত্যন্ত সাহায্য করবে। উপকৃত হবে বিএমসির স্কুলগুলির কচিকাঁচারাও।’‌ উত্তরে টুইটারে শচীন লিখেছেন, ‘‌দিনমজুরদের পরিবারগুলির পাশে দাঁড়িয়েছে Hi5। ওঁদের জন্য অনেক শুভেচ্ছা রইল।’‌ 

এর আগে মহারাষ্ট্র সরকার এবং কেন্দ্রের ত্রাণ তহবিলে ২৫ লক্ষ করে মোট ৫০ লক্ষ টাকা অনুদান দিয়েছিলেন শচীন। এরপরই শোনা গিয়েছিল, আপনালয় নামের একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সঙ্গে হাত মিলিয়ে এক মাসের জন্য পাঁচ হাজার মানুষের মুখে অন্ন তুলে দেওয়ার দায়িত্ব কাঁধে নিয়েছেন শচীন। এবার আর্থিকভাবে অসহায় মানুষগুলির পাশে দাঁড়িয়ে ফের অনুরাগীদের মন জয় করলেন তিনি।