স্পোর্টস ডেস্ক, টিডিএন বাংলা : কুমার সাঙ্গাকারা, মাহেলা জয়াবর্ধনে, তিলকরত্নে দিলশানদের বিদায়ের পর কিছুটা ব্যাকফুটে রয়েছে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট। যাচ্ছে পুনর্গঠন প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে। উপুল থারাঙ্গা, অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস, দিনেশ চান্দিমালরা আনতে পারছেন না আশানুরূপ ফল। যে কারণে লঙ্কান ক্রিকেট সাপোর্টাররা ক্ষুব্ধ ও বিরক্ত।
সর্বশেষ টেস্ট সিরিজে কোহলিদের কাছে হোয়াইটওয়াশ হয়েছে শ্রীলঙ্কা। ৩-০ ব্যবধানে। ওয়ানডে সিরিজে ঘুরে দাঁড়ানোর সুযোগ তাদের। কিন্তু পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজটা লঙ্কানরা শুরু করেছে বড় হার দিয়ে। রনগিরি ডাম্বুলা ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়ামে বিরাট কোহলির ভারতের কাছে ৯ উইকেটের ব্যবধানে পরাস্ত হয়েছে থারাঙ্গার দল।
ভারতের কাছে এই হারের পর ক্ষুব্ধ লঙ্কান ভক্তরা। রাগ ও ক্ষোভে শ্রীলঙ্কার টিম বাস আটকালেন তারা। তাদের দাবি, লঙ্কান ক্রিকেটের এই নাজুক অবস্থার জন্য কর্তারা দায়ী। লঙ্কান ক্রিকেটে রাজনীতি ঢুকেছে। ভক্তরা এই নোংরা রাজনীতি দেখতে চান না। শ্রীলঙ্কার আগের ক্রিকেটকে ফিরে চান তারা। এভাবেই নানা স্লোগান দিয়ে লঙ্কানদের টিম বাস আটকে দিয়েছিলেন।
ভ্ক্তদের দুঃখ বুঝলেন শ্রীলঙ্কার বর্তমান অধিনায়ক উপুল থারাঙ্গা। পাশাপাশি ওই ভক্তদের সাপোর্টও চান তিনি, ‘ভক্তদের সমর্থন দলের জন্য অনুপ্রেরণা হয়ে কাজ করে। আমরা দেশের জন্য খেলি। আমাদের প্রধান লক্ষ্য- ২০ মিলিয়ন (২ কোটি) লঙ্কানদের গর্ব বয়ে আনা। সুতরাং ভক্তদের পাশে চাই। আমাদের ওপর বিশ্বাস রাখুন। তাহলে সিংহের মতোই আবারও গর্জন দিতে পারব।’