টিডিএন বাংলা ডেস্ক: ফুচকা খেতে গিয়ে ফুচকা বিক্রেতার সঙ্গে বচসা। শেষ পর্যন্ত বচসা চরম পর্যায়ে পৌছলে ফুচকা বিক্রেতা ছুরি দিয়ে গলা কেটে খুন করল খদ্দেরকে। মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার সন্ধ্যায় বাঁকুড়া জেলার বিষ্ণুপুরের দলমাদল রোডে।

এদিনে সন্ধেয় দলমাদল রোডে ফুচকা বিক্রি করছিলেন মধুসূদন মাজি। তার দোকানে ফুচকা খেতে যান কুড়চিবন এলাকার বাসিন্দা সুজয় পাসোয়ান(৩২)। স্থানীয় সূত্রে খবর, কোনও একটি বিষয়কে কেন্দ্র করে মধুসূদনের সঙ্গে বচসা বেধে যায় সুজয়ের। সেখান থেকেই শুরু হয়ে যায় হাতাহাতি।

ধস্তাধস্তির মধ্যেই সুজয়ের গলায় পেঁয়াজ কাটার ছুরি চালিয়ে দেয় মধুসূদন। ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়েন সুজয়। স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে বিষ্ণুপুর সুপার স্পেশালিটি হসপাতালে নিয়ে গেল তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। কী নিয়ে বচসা তা অবশ্য এখনও জানা যায়নি।

আচমকা ঘটে যাওয়া ওই ঘটনায় অবাক হয়ে যান অনেকে। উত্তজনা ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। এদিকে, সুজয়ের মৃত্যুর খবর পেতেই বিষ্ণুপুর থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করে ফুচকা বিক্রেতা মধুসূদন মাজি। পুলিশ তাকে গ্রেফতার করেছে।