টিডিএন বাংলা ডেস্ক: রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের ঘটনা তোলপাড় ফলেছিল রাজ্যে। রবীন্দ্রভারতীর অধ্যাপিকার পর কসবার সেন্ট্রাল জিএসটি অফিস। সিজিএসটি ও সেন্ট্রাল এক্সাইজের অতিরিক্ত কমিশনার পদমর্যাদার এক আধিকারিক কয়েকজন ব্যক্তির বিরুদ্ধে জাত তুলে গালগাল দেওয়ার অভিযোগ করেছেন। জাত কারও পরিচয় হতে পারে না। অথচ এখনও এই সমাজে জাত তুলে কাউকে খোঁচা দেওয়ার জঘণ্য প্রবণতা গেল না। এই শহরও এই রোগে আক্রান্ত।

ওই আধিকারিকের অভিযোগ, সোলেনি বনসল, কৃষ্ণকুমার বনসল, স্নেহলতা নামে কয়েকজন গত এপ্রিল থেকে তাঁকে উদ্দেশ্য করে বিভিন্ন মন্তব্য করেছেন। তিনি তফশিলি জাতিভুক্ত হওয়ায় তাঁকে ইচ্ছাকৃতভাবে এই ধরণের মন্তব্য করছেন বলে অভিযোগ। তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ অপরাধমূল ষড়যন্ত্র ও তফশিলি জাতি ও উপজাতিদের ওপর নিগ্রহ প্রতিরোধ আইনে মামলা রুজু করেছে।

শুধু মামলা নয়, জাতের নামে বজ্জাতি বন্ধ করতে কঠোর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হোক অপরাধ প্রমাণ হলে।