নিজস্ব সংবাদদাতা, টিডিএন বাংলা, কলকাতা: জেরুজালেম ইস্যুতে আমেরিকার বিরুদ্ধে ভোট দেওয়ায় ভারত সরকারের প্রসংসা করলো বাংলার মুসলিমরা। বিভিন্ন মুসলিম নেতারা জানিয়েছেন, ভারত সরকার সাহসী পদক্ষেপ নিয়েছে।
পীরজাদা তামিম সিদ্দিকী রবিবার জানান, “ভারত সরকারের এই সৎ সাহস কে ধন্যবাদ জানাই। বিজেপির সাথে মতের নীতিগত পার্থক্য থাকলেও জেরুজালেম ইস্যুতে কেন্দ্রের সিদ্ধান্ত প্রশংসনীয়। আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে এই প্রথম আমেরিকার বিরুদ্ধে সিদ্ধান্ত নিলেন ভারতের কোন প্রধান মন্ত্রী।
তবে আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে যেভাবে তিনি সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, ঠিক সেই ভাবে ভারতের সংখালঘু মুসলমানদের ক্ষেত্রে সঠিক সিদ্ধান্ত নিন, যাতে ভারতের মুসলিমরা আপনার নেওয়া সঠিক সিদ্ধান্তে সুখে শান্তিতে এই সোনার ভারতে বসবাস করতে পারে।”
সংখ্যালঘু যুব ফেডারেশনের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ কামরুজ্জামান বলেন, “ভারতের একটা বৈদেশিক নীতি আছে। যেই ক্ষমতায় আসুক না কেন দেশের স্বার্থ দেখতে হবে।জেরুজালেম ইস্যুতে আমেরিকার সিদ্ধান্ত ছিল ভুল ও ধ্বংসাত্মক। সারা পৃথিবীর সাথে ভারত যেভাবে ফিলিস্তিনের পাশে দাঁড়িয়েছে তা ভারতের চিরাচরিত বৈশিষ্টের একটা অংশ।ভারত কোনও দিন বিভেদকামী শক্তির প্ররোচনায় পা দেবেনা এটা বিশ্ব চায়।’
অন্যদিকে অধ্যাপক আব্দুল মতিন এই টিডিএন বাংলাকে বলেন,”বিশ্বের ১২৮ টি দেশ জেরুজালেম ইস্যুতে আমেরিকার বিরুদ্ধে ভোট দিয়েছে।ফলে ভারতের জন্য এর বাইরে যাওয়া সত্যি সম্ভব নয়।কেন্দ্রীয় সরকার জানতো যে প্যালেস্টাইন ইস্যুর বিরুদ্ধে গিয়ে খুব একটা লাভ হবেনা। তবে কেন্দ্রীয় সরকার অন্যদিকে প্রতিরক্ষা সহ বিভিন্ন বিষয়ে ইজরাইলের সাথে দ্বিপাক্ষিক চুক্তি করেছে।ইজরাইলের সাথে মোদী সরকারের এতো সম্পর্ক কেন?ভারতের উচিৎ বৈদেশিক ক্ষেত্রে মুসলিম দেশগুলির সাথে সুসম্পর্ক রাখা যাতে বিদেশি বাজার আমরা দখল করতে পারি।”