প্রশান্ত দাস, টিডিএন বাংলা, মালদা: আজ ১৮ ই আগস্ট। মালদা জেলার বাস্তবিক স্বাধীনতা দিবস। এদিনই মালদা জেলা ভারতবর্ষের অন্তর্ভুক্তি হয়েছিল। জেলার ৫ টি থানা যদিও তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের অন্তর্ভুক্ত হয়। দশটি থানা থেকে যায় ভারতের মধ্যে। সালটা ১৯৪৭ রেটক্লিভ রয়েদাদ অনুযায়ী মালদা জেলা পাকিস্তানের অন্তর্ভুক্ত হয়। জেলার দখল নেয় পাকিস্তানি খানসেনা। এরপরই জেলা জুড়ে শুরু হয় তীব্র আন্দোলন।

মালদা বাসীর দাবি ছিল মালদা জেলাকে ভারতের অন্তর্ভুক্ত করা হোক। এরপর টানা উৎকণ্ঠার মধ্যে দুইদিন কাটার পর ১৮ ই আগস্ট মালদা জেলা ভারতের অন্তর্ভুক্তি হয়।পাকিস্তানি পতাকা নামিয়ে জেলা প্রশাসনিক ভবনে জেলা পুলিশ সুপারের দপ্তরে ভারতের জাতীয় পতাকা তোলা হয়। কিন্তু মালদার ৫ টি থানা চাঁপাইনবাবগঞ্জ, শিবগঞ্জ, গোমস্তাপুর, নাচোল ও ভোলাহাট পাকিস্তানের মধ্যে থেকে যায়।

দশটি থানা নিয়ে গঠিত হয় মালদা জেলা। এই দিনটিকে মালদা বাসী প্রতিবছরই মালদার স্বাধীনতা দিবস হিসেবে পালন করে। এ বছরও শহরের বাবু পাড়া দুর্গা বাড়ি মোড় এলাকায় কাউন্সিলর অম্লান ভাদুড়ি ভারতের জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন। এরপর চলে মিষ্টি মুখের পালা।