টিডিএন বাংলা ডেস্ক : ফের রাজ্যসরকারি কর্মচারীদের জন্য সুখবর। বৃহস্পতিবার নজরুল মঞ্চে রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের ফেডারেশনের বৈঠকে যোগ দেন মুখ্যমন্ত্রী। বৈঠক থেকেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বকেয়া ডিএ মেটানোর প্রতিশ্রুতি দেন। এদিনের অনুষ্ঠানে তিনি ঘোষণা করেন ২০১৯ সালের মধ্যে সমস্ত বকেয়া মহার্ঘভাতা মিটিয়ে দেওয়া হবে। এবং আগামী ১ জানুয়ারি থেকে ১৫ শতাংশ বকেয়া ডিএ দেওয়ার কথাও জানান তিনি।

 

 

এদিন মুখ্যমন্ত্রী প্রতিশ্রুতি দেন, আগামী বছরের ১ জানুয়ারি থেকে ১৫ শতাংশ বকেয়া ডিএ দেওয়া হবে। মোট ৫৪ শতাংশ ডিএ এখনও বকেয়া রয়েছে। ১ জানুয়ারি থেকে ১৫ শতাংশ ডিএ দেওয়ার পরেও ৩৯ শতাংশ ডিএ বাকি থাকবে। সেই ডিএ ২০১৯ সালের মধ্যে দেওয়া হবে বলে জানানো হয়।

রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের এই ডিএ নিয়ে দীর্ঘদিনের ক্ষোভ। পাশপাশি বকেয়া ডিএ নিয়েও ক্ষোভ ছিল তাদের। এই নিয়ে স্টেট অ্যাডিমিনিস্ট্রেটিভ ট্রাইবুনাল-এ মামলাও হয়। মামলার রায়ে এসএটি মন্তব্য করেছিল, ডিএ সরকার চাইলে দিতে পারে, আবার নাও দিতে পারে। এই রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে কলকাতা হাইকোর্টে মামলা করেন কর্মীরা। দু’দিন আগে ওই মামলার শুনানিতে রাজ্য সরকারের তরফে হাইকোর্টে জানানো হয়, পে কমিশনের প্রস্তাব মেনে সরকারি কর্মীদের ডিএ বা মহার্ঘভাতা দেওয়াটা বাধ্যতামূলক নয়। তবে এদিন মুখ্যমন্ত্রী জানান আগামী বছরের মধ্যে সব বকেয়া ডিএ মিটিয়ে দেবে সরকার। (সূত্র : দিনদর্পণ)