নিজস্ব সংবাদদাতা, টিডিএন বাংলা, মুর্শিদাবাদ : জঙ্গিপুর লোকসভাকে পাখির চোখ করে ময়দানে নামতে চলেছে ওয়েলফেয়ার পার্টি অফ ইন্ডিয়া। শনিবার পেট্রোল ডিজেলের দাবি বৃদ্ধি, জেলা ভাগ, মুর্শিদাবাদে বিশ্ববিদ্যালয়ের দাবি সহ একাধিক দাবি নিয়ে মুর্শিদাবাদের জঙ্গিপুরে বিশাল জনসভা করে ডব্লিউপিআই।

এদিনের সমাবেশে ওয়েলফেয়ার পার্টি অফ ইন্ডিয়ার সর্বভারতীয় সভাপতি ড. এস কিউ আর ইলিয়াস, সাধারণ সম্পাদক সীমা মহসীন, রাজ্য সভাপতি মনসা সেন, সভানেত্রী শাহজাদী পারভীন, কার্যকরী কমিটির সদস্য জালালউদ্দীন আহমেদ, ফ্রেটারনিটি মুভমেন্ট এর পশ্চিমবঙ্গের সভাপতি আরাফাত আলী, আবু তাহের আনসারী, নায়েমা আনসারী সহ বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

দুপুরে জঙ্গিপুর ম্যাকেন্জি পার্ক থেকেই শুরু হয় বিশাল মিছিল। মিছিলে যোগ দেন বহু মহিলা। পুরো জঙ্গিপুর এলাকা পরিক্রমা করে রবীন্দ্র ভবনে এসে শেষ হয়। মিছিল শেষে রবীন্দ্র ভবনে কর্মিসভা থেকেই কার্যত লোকসভা নির্বাচনে জোরদার লড়াই এর ইঙ্গিত দিলো মূল্যবোধ ভিত্তিক রাজনৈতিক দল ডব্লিউপিআই এর সর্বভারতীয় সভাপতি ড. এস কিউ আর ইলিয়াস। জেলার জঙ্গিপুর লোকসভা কেন্দ্র থেকেই পার্লামেন্টে প্রতিনিধি পাঠানোর ব্যাপারেও দৃঢ় আত্ম প্রত্যয়ী হলেন তিনি। ইলিয়াস সাহেব বলেন, রাজ্যের একটা গুরুত্বপূর্ণ স্থান হিসাবে জঙ্গিপুর সমাদৃত হলেও এখানকার মানুষের জীবন যাত্রার মান তেমন ভাবে পরিবর্তন হয় নি। পিছিয়ে পড়া বিড়ি শ্রমিক অধ্যুষিত এলাকা থেকে ভারতের রাষ্ট্রপতি পর্যন্ত হয়েছে কিন্তু বেকারত্ব থেকে শুরু করে এলাকার সার্বিক সমস্যা সমাধানে তৎপরতা কেউ দেখায় নি। তাই আগামী নির্নাচনে তিনি ওয়েলফেয়ার পার্টি কে ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করার আহবান জানান। এদিন পার্টির সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক সীমা মহসিন নবাবের জেলাকে ফের দেশে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে সাহায্য করতে ওয়েলফেয়ার পার্টির প্রার্থী দের ভোট দেওয়ার আহ্বান জানান। কেন্দ্রের মোদি সরকারের ও তীব্র সমালোচনা করেন তিনি। রাজ্য সরকারের নানান অপ্রীতিকর অবস্থা তুলে ধরে তৃনমূল সরকার কে তুলোধুনো করেন ফ্রাতারণীটি মুভমেন্টর রাজ্য সভাপতি আরাফাত আলী।