টিডিএন বাংলা ডেস্ক: বিজেপি নেতারা ‘অশিক্ষিত’ বলে আগেই তৃণমূল নেত্রী অভিযোগ করেছেন। এমনকি বাংলা সম্পর্কে তাঁরা জানেনা বলেও দাবি মুখ্যমন্ত্রীর। এবার রবীন্দ্রনাথের ‘সহজপাঠ’কে বিদ্যাসাগরের বলে দিব্যি চালিয়ে দিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। আর বিজেপি নেতার এই মন্তব্য ঘিরে তীব্র বিতর্ক শুরু হয়েছে।

এক নির্বাচনী জনসভায় এসে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের লেখা ‘সহজপাঠ’ কে বিদ্যাসাগরের লেখা বলে ভুল তথ্য দিলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বৃহস্পতিবার ইসলামপুরের প্রচার সেরে শিলিগুড়িতে এসে বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙ্গার প্রসঙ্গে একথা বলেন তিনি।

এই রকম মন্তব্য করেও ভুল স্বীকার করেননি বিজেপি সভাপতি। বরং দিলীপ ঘোষ মূর্তি ভাঙার সম্পুর্ন দায় তৃণমূলের উপর চাপিয়ে তৃণমূলের বিরুদ্ধে রাজনীতি করার অভিযোগ করেন।

সে প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “নিজেরা মূর্তি ভেঙে নিজেরাই কান্নাকাটি করছে তৃণমূল। যার জন্য বিদ্যাসাগর বিখ্যাত ‘সহজ পাঠ’ আমরা ছোটবেলা থেকেই পড়েছি। কিন্তু সিপিএম তা স্কুল থেকে সরানোর পর তৃণমূল কি আবার তা চালু করেছে?”