নিজস্ব সংবাদদাতা, টিডিএন বাংলা,মুর্শিদাবাদ: সোমবার বহরমপুরের বিজেপি প্রার্থী কৃষ্ণ জোয়াদার আর্যের সমর্থনে জনসভায় এসেছিলেন যোগী আদিত্যনাথ। এফ ইউ সি ময়দানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে রাজ্য সরকারের তীব্র সমালোচনা করলেও বহরমপুরের সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরীর নাম করে একবারও তার বিরুদ্ধে কথা না বলায় রাজনৈতিক মহলে শুরু হয়েছে তীব্র গুঞ্জন।একদিকে তো মাঠ ভরা নিয়ে দুশ্চিন্তা কাটেনি বিজেপির অন্যদিকে অধীরের বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক কথা না বলায় তীব্র অস্বস্তিতে পড়তে হয়েছে জেলা নেতৃত্ব কে।

কংগ্রেসের গড়ে শুধুমাত্র তৃণমূল এবং বামেদের তুলোধোনা করলেও এ দিন বহরমপুরের কংগ্রেস সাংসদ অধীর চৌধুরী নিয়ে যোগী খরচ করেছেন নাম মাত্র একটি বাক্য-“পঞ্চম বারের জন্য লোকসভা নির্বাচনে লড়ছেন স্থানীয় কংগ্রেস সাংসদ। কিন্তু তাঁর এলাকায় কাজ হয়েছে কি!’’ সামান্য এই সমালোচনার সূত্র ধরে তৃণমূল ফের কংগ্রেস তথা অধীরের সাথে আরএসএস যোগের প্রশ্ন তুলেছেন।

উল্লেখ্য, এর আগেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বারবার অধীর ও অভিজিৎ এর সাথে আরএসএস যোগের কথা বলেছেন। এবারে অধীরের বিরুদ্ধে কথা না বলায় ফের মমতার সুরে মুর্শিদাবাদ জেলা তৃণমূল সভাপতি সুব্রত সাহা যবলেছেন, ‘‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কবে থেকেই বলছেন, এ জেলার দু’জন কংগ্রেস প্রার্থীর হয়ে প্রচার করে আরএসএস। এ দিন যোগীর নামমাত্র সমালোচনা তারই প্রমাণ। সমঝোতা যে হয়ে গেছে তা ফের স্পষ্ট উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রীর ঝাঁঝহীন বক্তব্যে।’’